শাওন ইসলাম,

ষ্টাফ করেসপন্ডেন্ট:

নতুন তিন বিচারপতি নিয়োগের পর দ্রুত মামলা নিষ্পত্তিতে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে তৃতীয় বেঞ্চ গঠন করার আভাস পাওয়া গেছে। খুব তারাতারি নতুন এ বেঞ্চ গঠন করার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানা গেছে। নতুন বেঞ্চ গঠন করা হলে আপিল বিভাগে মোট তিনটি বেঞ্চ গঠিত হবে। 

আপিল বিভাগের নতুন এ বেঞ্চের নেতৃত্বে আসার সম্ভাবনা রয়েছে আপিল বিভাগের প্রথম নারী বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানা। তবে আপিল বিভাগে হাইকোর্ট বিভাগ থেকে আরো দুই থেকে তিনজন বিচারপতিকেও নিয়োগ দেওয়া হতে পারে বলে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে।

বর্তমানে আপিল বিভাগে বিচারকাজ পরিচালনা করছেন দু’টি বেঞ্চ। এর মধ্যে এক নম্বর বেঞ্চের নেতৃত্বে রয়েছেন প্রধান বিচারপতি ‍সুরেন্দ্র কুমার সিনহা। সঙ্গে রয়েছেন বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন, বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী, বিচারপতি মির্জা হোসেইন হায়দার ও বিচারপতি মোহাম্মদ বজলুর রহমান।

২ নম্বর বেঞ্চের নেতৃত্বে রয়েছেন জেষ্ঠ বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্‌হাব মিঞা। ওই বেঞ্চের সদস্য হিসেবে রয়েছেন বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানা, বিচারপতি মোহাম্মদ ইমান আলী ও বিচারপতি মো. নিজামুল হক।

তৃতীয় বেঞ্চের বিষয়ে হাইকোর্ট বিভাগের অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার সাব্বির ফয়েজ বলেন, প্রধান বিচারপতি চাইলে যেকোনো সময় তৃতীয় বেঞ্চ গঠন করতে পারেন। কারণ, আপিল বিভাগের একটি বিচারকক্ষ খালি আছে। তিনি বলেন, কয়েকদিন আগে আপিল বিভাগের এক নম্বর বেঞ্চের পাশের কক্ষকে তিন নম্বর কোর্ট হিসেবে প্রস্তুত করা হয়েছে। যেখানে তৃতীয় বেঞ্চ বসতে পারেন।

সর্বশেষ গত বছরের ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত এ কক্ষে বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানার নেতৃত্বে তৃতীয় বেঞ্চ বিচারকাজ পরিচালনা করতেন। ১৭ জানুয়ারি এ বেঞ্চ বিলুপ্ত করে বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানাকে এক নম্বর কোর্টের সদস্য হিসেবে রাখা হয়। এবং জ্যেষ্ঠ বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্‌হাব মিঞার নেতৃত্বে ২ নম্বর বেঞ্চ গঠন করেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা।

২০১৩ সালের ২৮ মার্চ একসঙ্গে চারজন বিচারপতিকে আপিল বিভাগে নিয়োগের পর প্রথম নারী বিচারপতি হিসেবে বিচারপতি নাজমুল আরা সুলতানা আপিল বেঞ্চের নেতৃত্ব পান ২০১৩ সালের ১ মে। ওই সময় ২ নম্বর বেঞ্চের কোনো কার্যক্রম ছিলো না।