প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মেলাতে প্রযুক্তিগত উৎকর্ষের বিকল্প নেই: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

   
প্রকাশিত: ৫:২২ অপরাহ্ণ, ২৭ অক্টোবর ২০২০

জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেছেন, উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে হলে প্রযুক্তিগত উৎকর্ষের কোন বিকল্প নেই। আজ মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) মেহেরপুর জেলা প্রশাসন আয়োজিত ৪১তম জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ, বিজ্ঞান মেলা এবং ৪১তম জাতীয় বিজ্ঞান অলিম্পিয়াড এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়াল কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, বর্তমান বিশ্ব প্রযুক্তি নির্ভর। বিশ্বের উন্নত রাষ্ট্রগুলো বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে অনেকদূর এগিয়ে গেছে। দেশকে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করতে আমাদেরকে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে আরো সক্ষমতা অর্জন করতে হবে। তিনি আরো বলেন, আমাদের শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞানমনস্ক করে তুলতে হবে। এক্ষেত্রে শিক্ষকদের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। তাই শিক্ষকদের প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণের মাধ্যমে সক্ষম করে তুলতে হবে।

প্রতিমন্ত্রী এ সময় বিজ্ঞানক্লাব ও বিজ্ঞানল্যাবের প্রয়োজনীয়তা উল্লেখ করে বলেন, বিভিন্ন পর্যায়ের বিজ্ঞান ক্লাবগুলো শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞানমনস্ক করে গড়ে তুলতে এবং তাদেরকে প্রশিক্ষিত করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। তাই প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বিজ্ঞানক্লাব গড়ে তুলতে হবে। এছাড়াও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞান ল্যাবগুলোকে উন্নত ও আধুনিক করতে হবে, যেন শিক্ষার্থীরা হাতে-কলমে শিক্ষা গ্রহণ করতে পারে।

তিনি আরো বলেন, বর্তমান যুগে প্রযুক্তির উৎকর্ষতার সাথে সাথে আমরা পরিবেশ দূষণেরও সম্মুখীন হচ্ছি। এক্ষেত্রে আমাদের আরো সচেতন হতে হবে। আধুনিক বর্জ্য ব্যবস্থাপনার প্রয়োগ ঘটিয়ে দূষণ কমিয়ে আনতে হবে। কলকারখানার ক্ষতিকর বাই-প্রোডাক্টগুলো কাজে লাগিয়ে তা কিভাবে পরিবেশের উপযোগী করে ব্যবহার করা যায়, সে বিষয়ে আরো গবেষণা করতে হবে। প্রতিমন্ত্রী এজন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে উদ্যোগী হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।

জেলা প্রশাসক ড. মুনসুর আলম খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে পুলিশ সুপার এস এম মুরাদ আলি, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ খালেক বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: