করোনায় ঢাকার ডেঞ্জার জোন যে দু’টি এলাকা

   
প্রকাশিত: ১০:৪১ পূর্বাহ্ণ, ১০ এপ্রিল ২০২০

দেশে হু হু করে বাড়ছে করোনাক্রান্তের সংখ্যা। দেশে এখন পর্যন্ত ৩৩০ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে শীর্ষস্থানে রয়েছে ঢাকা শহর। এখানে ১৯৬ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। এ ছাড়া ঢাকার পাঁচটি উপজেলায় আরো ১৩ জন রোগী আক্রান্ত হয়েছে। সব মিলিয়ে ঢাকার ২০৯ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

রাজধানী ঢাকার মধ্যে বৃহত্তর মিরপুরে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। এখানকার ১০টি এলাকায় মোট ৪২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইডিসিআর) ওয়েবসাইট থেকে এ তথ্য জানা গেছে। আইইডিসিআরের করা তালিকায় উত্তরা পূর্ব ও পশ্চিম থানাধীন বিভিন্ন সেক্টরের বিশাল এলাকাকে শুধু উত্তরা ক্যাটাগরিতে অন্তর্গত করা হয়েছে। এই উত্তরা ক্যাটাগরিতে সর্বোচ্চ ১৬ জন রোগী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। এরপরেই ধানমণ্ডিতে ১৩ জন, বাসাবোতে ১১ জন ও ওয়ারীতে ১০ জন করে রোগী শনাক্ত হয়েছে।

বৃহত্তর মীরপুরের কাজীপাড়ায় একজন, মিরপুর ১০ নম্বর সেকশনে তিনজন, মিরপুর ১১ নম্বরে ছয়জন,মিরপুর ১২ নম্বরে দুজন, মিরপুর ১৩ নম্বরে একজন, মিরপুর ১ নম্বরে ১১ জন, শাহ আলীবাগে দুজন, টোলারবাগে আটজন, উত্তর টোলারবাগে ছয়জন ও পীরেরবাগে দুজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়েছে। এ ছাড়া আগারগাঁওয়ে দুজন, মানিকদিতে একজন ও বেড়িবাধে একজন আক্রান্ত হয়েছে। আদাবরে একজন, মোহাম্মদপুরে আটজন, বসিলায় একজন,জিগাতলায় তিনজন, সেন্ট্রাল রোডে একজন, গ্রিন রোডে তিনজন, শাহবাগে দুজন,হাতিরপুলে দুজন, বুয়েট এলাকায় একজন, আজিমপুরে চারজন,হাজারীবাগে তিনজন, উর্দু রোডে একজন , চকবাজারে তিনজন, লালবাগে আটজন, বাবুবাজারে তিনজন, ইসলামপুরে দুজন, লক্ষ্মীবাজারে দুজন, নারিন্দায় একজন,দয়াগঞ্জে একজন,সোয়ারীঘাটে তিনজন, ধোলাইখালে একজন,কোতোয়ালিতে একজন, বংশালে চারজন,যাত্রাবাড়ীতে ছয়জন আক্রান্ত হয়েছে। শনির আখড়ায় একজন, মুগদায় একজন, পুরানা পল্টনে দুজন,রাজারবাগে একজন,ইস্কাটনে একজন, বেইলি রোডে তিনজন, মগবাজারে দুজন, শান্তিনগরে দুজন, রামপুরায় একজন, হাতিরঝিলে একজন,শাহাজাহানপুরে একজন,বাড্ডায় দুজন, বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় তিনজন, নিকুঞ্জতে একজন, আশকোনায় একজন,গুলশানে ছয়জন,বনানীতে একজন, মহাখালীতে দুজন, বেগুনবাড়ীতে একজন ও তেজগাঁওয়ে দুজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। গতকাল করোনাভাইরাসজনিত কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়ে একজনের মৃত্যুর কথা জানায় আইইডিসিআর। এ নিয়ে এ রোগে আক্রান্ত হয়ে ২১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া নতুন করে আরো ১১২ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়। এ নিয়ে মোট ৩৩০ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।

আরএএস/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: