প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

কাশ্মীরে ভারতের অপারেশন, জবাব দেয়ার ঘোষণা দিলেন ইমরান খান

   
প্রকাশিত: ৮:০৩ অপরাহ্ণ, ১৮ মে ২০২০

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের স্বাধীনতা আন্দোলনকে সমর্থন দেয়ার জন্য পাকিস্তানকে অভিযুক্ত করে মিথ্যা ফ্লাগ অপারেশন চালাতে পারে ভারতে ক্ষমতাসীন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সরকার। রোববার (১৭ মে) এমন আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। পাকিস্তানের গণমাধ্যম ডন জানায়, ইমরান খান ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে অবৈধ সম্প্রসারণ ও শক্তির নৃশংস ব্যবহারের মাধ্যমে নিষ্পেষণমূলক ও অমানবিক আচরণের কথা উল্লেখ করে ধারাবাহিক টুইট করেন।

তিনি বলেছেন, মোদির আরএসএস ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু ও কাশ্মীরে উদ্বুদ্ধ হওয়ার বিষয়টি খুব স্পষ্ট। প্রথমত, দখলকৃত এলাকায় তারা বেআইনিভাবে সম্প্রসারণ ঘটিয়ে নিজেদের অধিকার জারির মাধ্যমে কাশ্মীরিদের অধিকারবঞ্চিত করছে। দ্বিতীয়ত, তিনমুখী পদক্ষেপে কাশ্মীরিদের সঙ্গে অমানবিক আচরণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে নৃশংসভাবে শক্তির ব্যবহার করছে ভারতীয়রা। তারা নারী ও শিশুদের বিরুদ্ধে বন্দুকের গুলি ব্যবহার করছে।

ইমরান খান বলেন, অমানবিক লকডাউন আরোপ করেছে নরেন্দ্র মোদি সরকার। এর মধ্য দিয়ে কাশ্মীরিদের তাদের মৌলিক প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র খাদ্য থেকে শুরু করে ওষুধ পর্যন্ত বঞ্চিত করা হচ্ছে। ভারত সরকার কাশ্মীরিদের বিরুদ্ধে গণগ্রেফতার চালাচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন ইমরান খান। তিনি বলেন, এর মধ্যে বেশির ভাগই যুবক শ্রেণির। তাছাড়া সব রকম যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে কাশ্মীরকে বাকি বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাখা হয়েছে। এরই মধ্যে বিদেশি মিডিয়াকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে ইমরান খান বলেছেন, পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সামরিক একশনকে জায়েজ করার জন্য দখলকৃত কাশ্মীরে মিথ্যা ফ্লাগ অপারেশন চালাতে পারে ভারত। তবে এমনটা হলে পাকিস্তানও উচিত জবাব দেবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: