প্রচ্ছদ / অপরাধ / বিস্তারিত

ক্যাসিনো খালেদের নির্দেশে মাঠে নেমেছে ১৫ কিলার!

   
প্রকাশিত: ৪:৫১ অপরাহ্ণ, ২২ নভেম্বর ২০১৯

১৫ জন ভাড়াটে খুনি অত্যাধুনিক অস্ত্রসহ মাঠে নেমেছেন ক্যাসিনো মামলায় গ্রেফতারকৃত নেতা খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়ার সাম্রাজ্য রক্ষায়। জেলে বসেই খালেদ এদের নির্দেশ দিচ্ছেন। জেলে ঢীকার সময় খালেদ ভেবেছিলেন তিনি দ্রুত বেরিয়ে আসতে পারবেন কিন্তু তা না হওয়ায় এখন জেলে থেকেই নিজের নিয়ন্ত্রণাধীন এলাকাগুলোতে নিয়ন্ত্রণ বজায় রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

এ কাজে খালেদকে সহায়তা করছেন পলাতক শীর্ষ সন্ত্রাসী মানিক। খালেদ নিজের বাহিনীকে নির্দেশ দিয়েছেন মানিকের সাথে যোগাযোগ রাখতে। জানা গেছে, খালেদের বাহিনীর হাতে একে-২২ এর মতো অটোমেটিক এসল্ট রাইফেলও আছে। খালেদের ঘনিষ্ঠ সহযোগী হিসেবে পরিচিত সোহরাওয়ার্দী জানান, বাবরের মাধ্যমে খালেদ অস্ত্র সংগ্রহ করত। বায়তুল মোকাররম মসজিদের উল্টোপাশে পল্টনে বাবরের এক বন্ধুর একটি বৈধ অস্ত্রের দোকান আছে। বৈধ অস্ত্রের আড়ালে সেখানেও চলে অবৈধ অস্ত্রের কারবার।

খালেদের একটি ঘনিষ্ঠ সূত্র জানিয়েছে, প্রায় দুই মাস আগে ক্যাসিনোবিরোধী অভিযানের সময় গ্রেফতার হন খালেদ। ওই সময় তার ধারণা ছিল, দ্রুতই জামিনে মুক্ত হবেন তিনি। কিন্তু এখন তিনি বুঝতে পারছেন সহজে তার মুক্তি মিলছে না। এ কারণেই এখন তার পরিকল্পনা- জেলে বসেই সাম্রাজ্য নিয়ন্ত্রণ করা। জেলে বসেই সহযোগীদের নির্দেশনা দিয়ে তিনি বলেছেন, রামপুরা, খিলগাঁও, সবুজবাগ, বাসাবো, মতিঝিল এবং রমনা এলাকার নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখতে বিদেশে পলাতক শীর্ষ সন্ত্রাসী মানিকের সঙ্গে যেন তারা সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখে। দীর্ঘদিন ধরে মজুদ করা আগ্নেয়াস্ত্র যেন খোয়া না যায়, এ বিষয়েও ঘনিষ্ঠদের নির্দেশনা দিচ্ছেন তিনি।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: