প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মনজুরুল ইসলাম

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি

গোপনে বিয়ে করতে এসে কনে ছাড়াই বর পক্ষের বিদায়

   
প্রকাশিত: ১১:২১ পূর্বাহ্ণ, ৩ এপ্রিল ২০২০

ময়মনসিংহের সদরে করোনা আতঙ্কে গোপনে বিয়ে করতে এসে কনে ছাড়াই বরপক্ষকে বিদায় করে দিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) সন্ধার পর চরনিলক্ষীয়া ইউনিয়নের বিয়ে বাড়িতে পুলিশ উপস্থিত হয়ে করোনার সম্পর্কে সচেতন করে বরপক্ষকে গাড়িতে তুলে দেয়া।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) দুপুরে গাজিপুরের শ্রীপুর থেকে গোপনে বিয়ে করতে আসে সদর উপজেলার চর নিলক্ষিয়া ইউনিয়নে। এ সময় গোপনে বরপক্ষকে বাড়িতে তুলে কনেপক্ষ। আশেপাশের লোকজন বিষয়টি টের পেয়ে কনের বাবার কাছে জিজ্ঞাসা করলে কোনমতে কথার উত্তর না দিয়ে চলে যায়।

এদিকে বাড়ীতে রবপক্ষের আগমনে ধুমধাম করে রান্না করা ও মেয়েকে সাজিয়ে যখন বিয়ের কাজ শুরু করবে। তখন পুলিশ এসে হাজির হয় বিয়ে বাড়িতে। বাড়িতে অনেক মানুষের চলাফেরা দেখে পুলিশ বিয়ের ব্যাপারে জানতে চাইলে বরপক্ষ ও কনেপক্ষ বিয়ের বিষয়টি স্বীকার করে। এ সময় পুলিশ গাড়ির চাবি জব্দ করে।

সদর থানার এসআই সানাউল হক সঙ্গীয় ফোর্সসহ বিয়ে বাড়িতে উপস্থিত হলে স্থানীয় ইউপি সদস্য আবুল ফজল, ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক মো. তাজুল ইসলাম মুন্সী, জাতীয় পার্টির ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি মাসুদ রানা, স্বেচ্ছসেবক লীগের জেলা সদস্য আবুল কাশেম মন্ডল, ইউনিয়ন বিএনপি’র সহ-সভাপতি মোখলেছুর রহমান মানিকের উপস্থিতিতে বরপক্ষ ও কনেপক্ষকে করোনা সম্পর্কে সচেতন করে বরপক্ষের লোকজনকে গাড়িতে উঠিয়ে দেয় পুলিশ।

এ সময় সদর থানার এস আই ছানাউল বিয়ে করাতে আসা মেহমানদের দ্রুত গাড়িতে উঠিয়ে বিদায় করে দেন এবং এতে এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ একমত পোষন করেন।

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: