গ্যালাক্সিতে ৩০টি এলিয়েন সভ্যতা থাকার দাবি গবেষণায়

   
প্রকাশিত: ৭:৩৪ অপরাহ্ণ, ১৭ জুন ২০২০

পৃথিবীর গ্যালাক্সিতে ৩০টির বেশি ‘সক্রিয় এলিয়েন সভ্যতা’ থাকতে পারে বলে দাবি করেছেন ইউনিভার্সিটি অব নটিংহামের গবেষকেরা। পৃথিবীর মতো বাসযোগ্য আর কোনো গ্রহ আছে কি না এমন একটি গবেষণা করতে গিয়ে বিজ্ঞানীরা এলিয়েনের অস্তিত্ব টের পান বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ গণমাধ্যম দ্য ইন্ডিপেনডেন্ট। গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মিল্কিওয়ে গ্যালাক্সিতে কয়েক ডজন এলিয়েন সভ্যতা রয়েছে।‘আমাদের গবেষণার তথ্য উপাত্ত অনুযায়ী গ্যালাক্সিতে কয়েক ডজন সক্রিয় সভ্যতা থাকার কথা। পৃথিবীর মতো বুদ্ধিবৃত্তিক জীবন-যাপনে তাদের ৫ বিলিয়ন বছর সময় লাগবে,’ বিবৃতিতে বলেছেন নটিংহামের অধ্যাপক ক্রিস্টোফার কনসেলিস।

এলিয়েন বা ভিনগ্রহের প্রাণীদের নিয়ে আলোচনা নতুন কিছু নয়। ২০১৫ সালে মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা দাবি করে, ২০২৫ সালের মধ্যেই এলিয়েন খুঁজে পাওয়া যাবে। নাসার গবেষকেরা ওই সময় বলেন, ‘এই সৌরজগতে আমরাই শুধু নই, আমাদের জানাশোনার বাইরে এই সৌরজগতের কোথাও প্রাণের উদ্ভব ঘটতে পারে। নাসা তা প্রমাণ করার খুব কাছে চলে এসেছে।’‘আগামী এক দশকের মধ্যে এলিয়েনের খোঁজ পাওয়া যাবে; যা হবে পৃথিবীর মধ্যে সাম্প্রতিককালের সবচেয়ে বড় আবিষ্কার।’

গ্যালাক্সিতে এলিয়েন থাকার সম্ভাবনার কথাও আগে আলোচনা এসেছে। স্পেস ডটকমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আমাদের মিল্কিওয়ে গ্যালাক্সিতেই এলিয়েন বা ভিনগ্রহবাসীর অস্তিত্বের একাধিক চিহ্ন রয়েছে। নাসার কেপলার স্পেস টেলিস্কোপের তথ্য বিশ্লেষণ করলে দেখা যায়, আমাদের এই ছায়াপথে পৃথিবী ও মঙ্গলের মতো পাথুরে গ্রহ বেশি। সেই তুলনায় বৃহস্পতি বা শনির মতো গ্যাসীয় গ্রহের সংখ্যা কম। তাই অধিকাংশ তত্ত্বই বলে, পাথুরে গ্রহগুলো জীবনধারণের উপযোগী হতে পারে।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: