প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মো: মিজানুর রহমান

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহে করোনায় নতুন আক্রান্ত ৩৩

   
প্রকাশিত: ৮:০৮ অপরাহ্ণ, ৯ জুলাই ২০২০

ঝিনাইদহে করোনায় ট্রাফিক পুলিশ,পুলিশ, ইঞঈখ মাইক্রো ওয়েভ স্টেশনের ও একই পরিবারের ৪ জনসহ ৩৩ জন আক্রান্ত হয়েছে। শৈলকুপায় উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যক্তির নমুনা পজেটিভ। বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) এসব তথ্য জানান করোনা সেলের মুখপাত্র ডাঃ প্রসেনজিৎ বিশ্বাস পার্থ। এ পর্যন্ত মোট নমুনা সংগ্রহ ২৭৪৫ জন, মোট আক্রান্ত ৩৬৬, মোট সুস্থ ১২১ জন। জেলায় এ পর্যন্ত মৃত্যুর সংখ্যা ৬। হাসপাতালে ভর্তি ১৭ জন।

ঝিনাইদহ সিভিল সার্জন অফিসের মেডিক্যাল অফিসার ও করোনা সেলের মুখপাত্র ডাঃ প্রসেনজিৎ বিশ্বাস পার্থ জানান, ঝিনাইদহে নতুন করে ৩৩ আক্রান্ত হয়েছে। ঝিনাইদহ সদর থেকে ট্রাফিক পুলিশ, পুলিশ, ইঞঈখ মাইক্রো ওয়েভ স্টেশনের ও একই পরিবারের ৪ জনসহ ২৪ জন আক্রান্ত হয়েছে। সদর উপজেলার আক্রান্ত এলাকাগুলো হলো শহরের পুলিশ লাইনের ২ পুলিশ, সদর পুলিশ ফাঁড়ীর ২ পুলিশ, ট্রফিক অফিসের ১ পুলিশ, ৮. ইঞঈখ মাইক্রো ওয়েভ স্টেশনের ২ জন, ব্যাপাড়ী পাড়া সিদ্দিকীয়া সড়কের একই পরিবারের ৪ জন, আরাপপুর এলাকার ১জন, ব্যাপাড়ী পাড়ার ৩জন, পাগলাকানাই এলাকার ২জন, আদর্শপাড়ার ২জন, কাঞ্চরনগরের ১জন, আনসার ভিডিপি চাঁন্দমারি পাড়ার ১ জন, ভুটিয়ারগাতির ১জন, নলডাঙ্গা ইউনিয়নের যাত্রাপুর গ্রামের ১জন ও হরিশংকরপুর ইউনিয়নের কোদালিয়া গ্রামের ১জন। শৈলকুপার দুই জন আত্রান্ত। এর মধ্যে একজন মারা গেছে। মৃত ব্যক্তির বাড়ী বগুড়া ইউনয়নের মিনগ্রামে ও অপর আক্রান্ত ব্যক্তির বাড়ী দুধসর ইউনিয়নের ভাঁটই বাজারে। এছাড়া কালীগঞ্জে ৭ জন আক্রান্ত। আক্রান্ত এলাকাগুলো হলো কোলা ইউনিয়নের দোউলতপুরের খালকোলা গ্রামের ১জন, কালীগঞ্জ পৌর এলাকার চাপালি এলাকার ১জন, ঢাকালেপাড়ার ১জন, ফয়লার ১ জন, শিবনগরের আলিগঞ্জের ১জন, বারো বাজার ইউনিয়নের হাট বারো বাজারের ১জন, নিয়ামতপুর ইউনিয়নের দুলাল মুন্দিয়া গ্রামের ১জন। কুষ্টিয়া ল্যাবে ৭৭টি নমুনা পাঠানো হয়েছিল যার মধ্যে ৩৩ জনের ফলাফল পজেটিভ আসে এবং ৪৪জনের ফলাফল নেগেটিভ আসে।

এ যাবত মোট ২৪৭২ জনের ফলাফল আমাদের নিকট আসে। যার মধ্যে ২১০৬ জন নেগেটিভ ও ৩৬৬ জনের পজেটিভ আসে। মোট নমুনা সংগ্রহ করা হয় ২৭৪৫ জন। এ পর্যন্ত ঝিনাইদহ সদরে আক্রান্ত হয়েছে ১৩১ জন, কালীগঞ্জে ১২০ জন, শৈলকুপায় ৫৪ জন, কোটচাঁদপুরে ২৫ জন, মহেশপুরে ২০ জন ও হরিণাকুন্ডেু ১৬ জন। বৃহস্পতিবার ৫ জন সুস্থসহ মোট ১২১ জন সুস্থ হয়েছে। জেলায় এ পর্যন্ত ৬ জন মারা গেছে। এর মধ্যে শৈলকুপায় ৩ জন ও কালীগঞ্জে ৩ জন। বর্তমানে হাসপাতালে ভর্তি আছে ১৭ জন আছে বলে তিনি আরো জানান।

কেএ/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: