প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

ট্রাম্পকে বিষাক্ত চিঠি, সন্দেহভাজন এক নারী গ্রেফতার

   
প্রকাশিত: ১১:৩৯ পূর্বাহ্ণ, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০

ডোনাল্ড ট্রাম্পের নামে হোয়াইট হাউসে বিষাক্ত পদার্থ রাইসিন মেশানো চিঠি পাঠানোর ঘটনায় সন্দেহভাজন একজন নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সন্দেহভাজন ওই নারী ২০ সেপ্টেম্বর কানাডা থেকে নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যের সীমান্ত পেরিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে ঢোকার চেষ্টার সময় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

কানাডার নাগরিক ওই নারীকে সম্ভবত সোমবার হেফাজতে নিয়েছে মার্কিন পুলিশ। কিন্তু তদন্ত প্রক্রিয়া নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছে মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থাগুলো। কী কারণে ওই বিষাক্ত রাইসিন ট্রাম্পকে পাঠানো হচ্ছিল, তা পরিষ্কার নয়। এফবিআই শুধু এক বিবৃতিতে বলেছে, এক জন গ্রেফতার হয়েছে এবং তদন্ত চলছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, হোয়াইট হাউসে আসা যেকোনো চিঠি ভেতরে পৌঁছানোর আগেই পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়। চলতি সপ্তাহের শুরুর দিকে ওই পরীক্ষা-নিরীক্ষাতেই রাইসিন মেশানো চিঠির বিষয়টি ধরা পড়ে। ক্যাস্টর ওয়েল তৈরি হয় যে বীজ থেকে, সেই বীজ থেকে বিষাক্ত রাইসিন তৈরি হয়। তদন্তকারীদের ধারণা, চিঠিটি কানাডা থেকে এসেছে। সন্দেহভাজন একজন নারী ওই চিঠি কানাডা থেকে পাঠিয়েছেন। ডোনাল্ড ট্রাম্পের নামে হোয়াইট হাউসে পাঠানো চিঠি কানাডার কুইবেকের সেন্ট হুবার্ট থেকে এসেছে। চিঠিটি দুই দফা পরীক্ষা করা হয়েছে। দুই পরীক্ষাতেই বিষাক্ত রাইসিনের উপস্থিতি পাওয়া গেছে।

আরএএস/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: