প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

সুমিত সরকার সুমন

মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি

ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কে আগুন জ্বালিয়ে অবরোধ

   
প্রকাশিত: ১০:৪৯ অপরাহ্ণ, ১৮ অক্টোবর ২০২০

মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলার বালুয়াকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল আমিন প্রধান ও তার ছোটভাই আন্তঃজেলা ট্রাক চালক ইউনিয়নের গজারিয়া শাখার সভাপতি রিটু প্রধান এবং তাদের ব্যবসাসায়ী পার্টনার আলমগীর হোসেনকে রবিবার (১৮ অক্টোবর) বিকেলে আটক করে র‍্যাব-৪ সদস্যরা।

র‍্যাবের দাবি তাদের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা এবং অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে। তবে তাদের আটকের খবরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক দীর্ঘ প্রায় এক ঘণ্টা অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে করেছে তাদের সমর্থকরা। এসময় মহাসড়কে তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়।

আটক আল আমিন প্রধান ও রিটু উপজেলার বালুয়াকান্দি ইউনিয়নের তেতৈতলা গ্রামের মৃত গিয়াসসউদ্দিন প্রধানের ছেলে ও আলমগীর হোসেন একই গ্রামের আশেক আলীর ছেলে বলে জানা গেছে।

অভিযানের বিষয়ে র‍্যাব-৪ এর সদস্যদের প্রশ্ন করা হলেও তারা তাৎক্ষণিকভাবে এ বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

প্রত্যক্ষদর্শী ও আটককৃতদের স্বজনরা জানান, বিকেল সাড়ে ৪ টার দিকে বালুয়াকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল-আমিন প্রধান তেতৈতলা পুরাতন ফেরিঘাট এলাকায় তার ব্যবসায়ী কার্যালয়ে অবস্থান করছিলেন। এ সময় তার ছোটভাই রিটু প্রধান এবং তাদের ব্যবসায়িক পার্টনার আলমগীর হোসেনও সেখানে উপস্থিত ছিলেন। এ সময় সাদা একটি মাইক্রোবাসে করে একদল লোক নিজেদের র‍্যাব পরিচয় দিয়ে তাদের তিনজনকে আটক করে তাদের সাথে নিয়ে যেতে চায়।

র‍্যাব জানায় তাদের কাছে অস্ত্র এবং ইয়াবা পাওয়া গেছে। তাৎক্ষণিকভাবে স্থানীয় লোকজন ঘটনাটির প্রতিবাদ জানালে র‍্যাব সদস্যদের সাথে তাদের ধস্তাধস্তি হয়। পরবর্তীতে র‍্যাব সদস্যরা লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনে তাদেরকে নিয়ে চলে যায়।

পরবর্তীতে খবর পেয়ে তাদের ৭/৮’শ সমর্থক ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের তেতৈতলা হাস পয়েন্ট এলাকায় অবস্থান নেন। এ সময় তারা মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ ও টায়ারে আগুন লাগিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। তাদের অবরোধের কারণে দীর্ঘ প্রায় একঘন্টা মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ থাকে। পরবর্তীতে গজারিয়া থানা পুলিশের সদস্যরা ঘটনাস্থলে এসে দীর্ঘক্ষণ চেষ্টার পর সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টার দিকে তাদের মহাসড়ক থেকে নামিয়ে দিলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

গজারিয় থানার ওসি (তদন্ত) মামুন আল রশিদ জানান, পরিস্থিতি বর্তমানে তাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। পুলিশ বিক্ষোভকারীদের মহাসড়ক থেকে নামিয়ে দিয়েছে। যেকোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতি মোকাবেলায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা রয়েছে তবে অভিযানের ব্যাপারে তাদেরকে এখনো পর্যন্ত বিস্তারিত জানাননি র‍্যাব।

এআইআর/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: