প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

পাহাড় ধসের শঙ্কা: ঝুঁকিপূর্ণদের সরে যেতে মাইকিং

   
প্রকাশিত: ১২:৪৩ পূর্বাহ্ণ, ২৪ অক্টোবর ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রামে একটানা বৃষ্টিতে তলিয়ে গেছে বন্দরনগরীর নিম্মাঞ্চল। বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপ ও সক্রিয় মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে বৃষ্টি ও জোয়ারে পানি জমে অলিগলিতে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়েছে।
এতে দুর্ভোগে পড়েন নগরবাসী। এরইমধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড় থেকে লোকজনকে সরে যেতে মাইকিং করা হয়েছে। খোলা হয়েছে আশ্রয়কেন্দ্র।

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) রাত থেকে কয়েক দফা ভারি বর্ষণে নগরীর নিচু এলাকাগুলোতে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়।

আবহাওয়া অফিস জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭৪ মিলি মিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। ভারী বর্ষণের কারণে পাহাড় ধসেরও আশংকাও দেখা দিয়েছে। এরইমধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড় থেকে লোকজনকে সরে যেতে মাইকিং করা হয়েছে। খোলা হয়েছে আশ্রয়কেন্দ্র।

নগরীর নিচু এলাকাগুলোর কোথাও কোথাও জলাবদ্ধতার কারণে দেখা দিয়েছে যানজট। রিকশা, অটোরিকশায় চড়তে গুনতে হয়েছে বাড়তি ভাড়া।

চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ চেয়ারম্যান জহিরুল আলম দোভাষ বলেন, ‘আমি চেয়ারম্যান হবার আগে ১০ শতাংশ কাজ হয়েছে। আমি আসার পর এক বছরে ৪০ শতাংশ কাজ হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘গরীর জলাবদ্ধতা আগের চেয়ে কমে এসেছে। মেগা প্রকল্পের কাজ শেষ হলে জলাবদ্ধতা আরো কমে আসবে বলে জানান তিনি।’

২০১৮ সাল থেকে জলাবদ্ধতা নিরসনে সেনাবাহিনীর তত্ত্ববধানে প্রায় ৬ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে চলছে মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ।

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: