প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

বগুড়ায় বিট পুলিশিংয়ে মডেল হতে পারে শেরপুর থানা পুলিশ!

   
প্রকাশিত: ১১:২২ অপরাহ্ণ, ১২ আগস্ট ২০২০

আব্দুল ওয়াদুদ, (বগুড়া) থেকে: পুলিশি সেবা মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছে দিতে বিট পুলিশিং কার্যক্রম শুরু করেছে শেরপুর থানা পুলিশ। আইজিপির নির্দেশ বাস্তবায়নে পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুঁঞার তত্ত্বাবধানে বিট পুলিশিং কার্যক্রম সফল করতে চষে বেড়াচ্ছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শেরপুর সার্কেল গাজিউর রহমান ও শেরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান।

বুধবার (১২ আগষ্ট) সকাল ১১টায় মির্জপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্ত্বরে শেরপুরে বিট পুলিশিং কার্যালয়ের উদ্বোধন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শেরপুর সার্কেল) মো. গাজিউর রহমান। সেই সাথে কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত করতে বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষের খোলাখুলি মতবিনিময় করেন।

ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ আলীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শেরপুর সার্কেল) মো: গাজিউর রহমান। মির্জাপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নানের পরিচালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, থানা কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের প্রধান সমন্বয়ক শেরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ মিজানুর রহমান, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ শেরপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক আহ্সান হাবিব আম্বিয়া, থানা কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের আহ্বায়ক ও ধুনট উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মুহম্মদ আসিফ ইকবাল সনি। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, শেরপুর থানা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ, সদস্য সচিব মোঃ ফরহাদুজ্জামান শাহীন, মির্জপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের সদস্য সচিব জাহাঙ্গীর আলম প্রমূখ।

এ সময় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শেরপুর সার্কেল) মো: গাজিউর রহমান বলেন, শেরপুর উপজেলাকে মাদক-জুয়া ও অপরাধমুক্ত করার ঘোষণা করেন। বিট পুলিশিং কার্যক্রম নিয়ে শেরপুর থানা পুলিশ ভাল কাজ করছে। পুলিশের এমন জনমুখী কর্মকান্ড অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি আশাবাদ করেন। এরপর থেকে বিট পুলিশিং কার্যক্রম সম্পর্কে মানুষকে অবহিত করে পুলিশ জনগণের বন্ধু এটার প্রচার চালানোর চেষ্টা চলছে। এর ফল হিসাবে সচেতন মানুষের দেয়া গোপন তথ্যে মাদক মামলা, মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার ও মামলার আসামীসহ পরোয়ানাভুক্ত ধরতে সহজ হবে এবং বিট পুলিশিং এর মাধ্যমে শেরপুর থানা মডেল রুপান্তর হতে পারে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ শেরপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক আহ্সান হাবিব আম্বিয়া বলেন, বিট পুলিশিং সম্পর্কে ওসির তৎপরতা প্রশংসনীয়। তিনি যেভাবে এ কার্যক্রমের মাধ্যমে জনগণের কাছে যাবার চেষ্টা করছেন তাতে এ থানার কার্যক্রম দেশের মডেল হতে পারে।

এ বিষয়ে শেরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মিজানুর রহমান বলেন, উপজেলাকে মাদক-জুয়া-সুদসহ অপরাধ মুক্ত করতে পুলিশের সাঁড়াশি অভিযান অব্যাহত থাকবে। বিট পুলিশিংয়ের মাধ্যমে জনগণের কাছে সেবা পৌছে দেবার অঙ্গিকার করেন তিনি। এছাড়াও সর্বস্তরের জনগণের সেবা প্রদানে তার দরজা সবসময় উন্মুক্ত বলেও জানান।

কেএ/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: