প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

বগুড়ায় যুবদলের সাবেক সভাপতি সিপারকে দল থেকে বহিস্কার

   
প্রকাশিত: ১:৪৬ অপরাহ্ণ, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

আব্দুল ওয়াদুদ, বগুড়া থেকে: বগুড়ায় সাবেক জেলা যুবদলের সভাপতি সিপার আল বখতিয়ারকে দল থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভি স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

বহিস্কারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন বগুড়া জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট একেএম সাইফুল ইসলাম। তিনি জানান, মঙ্গলবার (২৯ সেপেটম্বর) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে সিনিয়র সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভি স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা তিনি জেনেছেন। সেখানে বলা হয়েছে, জেলা যুবদলের সাবেক সভাপতি সিপার আল বখতিয়ারকে প্রাথমিক পদসহ দলের সব ধরনের পর্যায়ের পদ থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। তবে লিখিত কোনো চিঠি এখনও আসেনি। সাইফুল ইসলাম বলেন, কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে তার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ ছিল। সর্বশেষ গত মঙ্গলবার জেলা বিএনপি কার্যালয়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির ঘটনায় সিপারকে বহিস্কার করা হতে পারে।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বগুড়া শহরের নবাব বাড়ি সড়কে জেলা বিএনপি কার্যালয়ের ভিতর গণ্ডগোল ঘটে। ঘটনার সময় বগুড়া-৬ (সদর) আসনের সাংসদ ও জেলা বিএনপির আহ্বায়ক গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ (জিএম সিরাজ) উপস্থিত ছিলেন।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, করোনার কারণে দীর্ঘ বিরতির পরে মঙ্গলবার দুপুরে বগুড়া জেলা বিএনপি কার্যালয়ে জেলা, উপজেলা ও পৌর বিএনপির সাংগাঠনিক নেতাদের নিয়ে সভার আয়োজন করা হয়। এতে জেলা বিএনপির নেতা হেলালুজ্জামান তালুকদার লালু, রেজাউল করিম বাদশা, জয়নাল আবেদীন চান, সাইফুল ইসলামসহ আরও অনেক নেতা উপস্থিত ছিলেন। এতে সভাপতিত্ব করেন জিএম সিরাজ।

নাম প্রকাশে একাধিক নেতা জানান, কার্যালয়ে সভা চলাকালে শিবগঞ্জ উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি নিয়ে কথা শুরু হয়। এর মধ্যে জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য কারাবন্দী বিএনপি নেতা এম আর ইসলাম স্বাধীনের কয়েকজন সমর্থক কার্যালয়ে প্রবেশ করেন। এ সময় তারা শিবগঞ্জ উপজেলা বিএনপির কমিটি নিয়ে কথা বলতে চাইলে কার্যালয়ে থাকা কয়েকজন নেতা তাদের বাধা দেন। এ নিয়ে অফিসের মধ্যে হট্টগোল শুরু হয়। এক পর্যায়ে দলীয় কার্যালয়ের মধ্যে চেয়ার ভাঙচুর শুরু হয়। পরে স্বাধীন সমর্থকদের ধাওয়া দিয়ে দলীয় কার্যালয় থেকে বের করে দেয়া হয়। পরে পুলিশের উপস্থিতি বিষয়টি নিয়ন্ত্রণে আসে।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: