প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

বগুড়া দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র জাহাঙ্গীর আলম বরখাস্ত

   
প্রকাশিত: ১১:৪১ অপরাহ্ণ, ২৭ অক্টোবর ২০২০

আব্দুল ওয়াদুদ, বগুড়া থেকে: বগুড়া দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র জাহাঙ্গীর আলমকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের পৌর-১ শাখার উপ-সচিব মোহাম্মদ ফারুক হোসেন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপণের মাধ্যমে বরখাস্তের কথা জানানো হয়। তবে প্রজ্ঞাপণের কোন কপি এখনো হাতে পাননি বলে জানান মেয়র জাহাঙ্গীর আলম। তিনি জানান, কপি পেলে আইনি লড়াই চালিয়ে যাবেন।

প্রজ্ঞাপণে বলা হয়েছে, দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র বিএনপি নেতা জাহাঙ্গীর হোসেনের বিরুদ্ধে গত ২৩ অক্টোবর ২০০৭ দুপচাঁচিয়া থানার মামলা (দুদক), স্পেশাল মামলা নম্বর ৪/০৮ এর অভিযোগপত্র এবং গত ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭ দুপচাঁচিয়া থানার মামলা নম্বর ১০, ধারা ২০০৯ সালের সন্ত্রাস বিরোধী আইন এর ৬(২) এর (ঈ)/১২, জি আর ১৫৯/১৭ (দুপ:) এর অভিযোগ পত্র বিজ্ঞ আদালত কর্তৃক গৃহীত হয়েছে।

এতে স্থানীয় সরকার (পৌরসভা) আইন, ২০০৯ এর ধারা ৩১(১) মোতাবেক যেক্ষেত্রে কোন পৌরসভার মেয়র অথবা কোন কাউন্সিলর অপসারণের কার্যক্রম আরম্ভ করা হইয়াছে অথবা তাহার বিরুদ্ধে ফৌজদারী মামলায় অভিযোগপত্র আদালত কর্তৃক গৃহীত হইয়াছে, সেই ক্ষেত্রে নির্ধারিত কর্তৃপক্ষের বিবেচনায় মেয়র বা কাউন্সিলর কর্তৃক ক্ষমতা প্রয়োগ পৌরসভার স্বার্থের পরিপন্থী অথবা প্রশাসনিক দৃষ্টিকোণে সমীচীন না হইলে, সরকার লিখিত আদেশের মাধ্যমে মেয়র অথবা কাউন্সিলরকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করিতে পারিবে। এতে বগুড়া জেলার দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র জাহাঙ্গীর আলম এর বিরুদ্ধে মামলার অভিযোগপত্র বিজ্ঞ আদালত কর্তৃক গৃহীত হওয়ায় পৌরসভার মেয়র কর্তৃক সংঘটিত অপরাধমূলক কার্যক্রম পৌর পরিষদসহ জনস্বার্থের পরিপন্থী মর্মে সরকার মনে করে। সেহেতু স্থানীয় সরকার বগুড়া জেলার দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র জাহাঙ্গীর আলম’কে দুপচাঁচিয়া পৌরসভার মেয়র পদ থেকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেছে।

মেয়র জাহাঙ্গীর আলম মুঠোফোনে জানান, মৌখিকভাবে তিনি তার সাময়িক বহিস্কারের ব্যাপারে জেনেছেন। তবে তিনি এখনও অফিসিয়ালি কোন কপি পাননি। কপি পেলে আইনী প্রক্রিয়া লড়বেন বলে জানান তিনি।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: