বাংলাদেশ থেকে চিকিৎসার কথা বলে মাকে কলকাতা রেখে পালাল মেয়ে

১২ জুন ২০১৯, ১১:৩০:৪৬

ছবি: সংগৃহীত

হৃদয় আলম: মা-মেয়ের সম্পর্ক সে যেন অতি আপন কিছু। এ সম্পর্ক যেন ভরসা আর ভালোবাসার অপর নাম। কিন্তু কখনো কি মা ভাবতে পারেন তাঁরই দুর্বলতার সুযোগ নিবে মেয়ে!

অপ্রিয় সত্য হলেও এমনটাই ঘটেছে এক বৃদ্ধার সাথে। চিকিৎসার কথা বলে তাঁর মেয়ে তাঁকে কলকাতা নিয়ে গিয়ে ফেলে রেখে পালিয়েছে। এখন ওই বৃদ্ধার অনিশ্চয়তার মধ্যে দিন পার করছে।

আর তাঁর এ করুণ কাহিনী ফুটে ওঠে কলকাতার মেয়ে আমবুজা রাওয়াতের ফেসবুকে। ওই বৃদ্ধাকে নিয়ে আমবুজা সম্প্রতি একটি স্ট্যাটাস দিয়েছে যা রিতীমতো ভাইরাল। এরই মধ্যে কিছু লোকের সহোযোগিতা পেয়েছেন ওই বৃদ্ধা কিন্তু স্থায়ী কোন সমাধান আসেনি।

স্ট্যাটাসে আমবুজা লেখেন, বয়স ৬০ কিংবা ৮০। কলকাতার হাবড়া রেলওয়ে প্ল্যাটফর্মে বসে আছেন এক বৃদ্ধা। ওই নারী পরিষ্কার বাংলায় কথা বলছেন, মার্জিত শব্দচয়ন। বৃদ্ধার বক্তব্য অনুযায়ী তাঁর মেয়ে পট্রোপোল সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশ থেকে কলকাতায় নিয়ে এসেছে তাঁকে। চিকিৎসার কথা বলে তাঁকে আনা হয়। কিন্তু পথীমধ্যে তাঁকে পানি আনার কথা বলে তাঁর মেয়ে গিয়ে আর ফিরে আসেনি।

স্ট্যাটাসে আমবুজা আরও উল্লেখ করেন, ১০০ ঘন্টার মতো সময় পেরিয়ে গেছে। দু-একজন খাবারসহ কিছু সহোযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিলেও চিরস্থায়ী কোন সমাধান হয়নি। যা খুবই চিন্তার বিষয়। আর নিজের মেয়ে হয়ে কিভাবে একজন মানুষ এমন কাজ করতে পারে আমি ভেবেই পাচ্ছিনা।

পোষ্টের সাথে ওই বৃদ্ধার ছবিও সংযুক্ত করেছে আমবুজা।

আমবুজার পোষ্টে অনেক লোক কমেন্ট করে বৃদ্ধার জন্য সাহায্যের আবেদন করেছে। কেউ কেউ আবার ওই বৃদ্ধার মেয়ের সমালোচনা করেছেন। অনেকে আবার আমবুজার প্রশংসাও করেছেন।

বিডি২৪লাইভ/এইচকে

এইচএ/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: