প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

ভবিষ্যতে কৃষিই হবে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের বড় খাত

   
প্রকাশিত: ১০:১২ অপরাহ্ণ, ২০ অক্টোবর ২০২০

ছবি: ইন্টারনেট

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, অদূর ভবিষ্যতে কৃষিই হবে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের একটি বড় খাত। সেজন্য আমরা যে যেখানে আছি সেখান থেকে সকলে মিলে কাজ করতে হবে। আমরা কৃষি বিপ্লব সফল করবো। খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা শুধু নয়, উদ্বৃত্ত সৃষ্টি করে বিদেশে রপ্তানি করবো। কৃষিখাতে শেখ হাসিনার উন্নয়নের অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রাকে সফল করবো।

আজ মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) পিরোজপুরের নেছারাবাদ উপজেলা পরিষদ চত্বরে গোপালগঞ্জ, খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা ও পিরোজপুর কৃষি উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, নেছারাবাদ পিরোজপুর আয়োজিত কৃষি প্রযুক্তি মেলা ২০২০ এর উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, কৃষিতে আমরা এখন আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করছি। সেকেলে পদ্ধতি থেকে বেরিয়ে এসে কৃষিকে যান্ত্রিকীকরণের পরিকল্পনায় রয়েছি। একই যন্ত্রে এখন ধান কাটা, মাড়াই ও বস্তা বন্দি করা সম্ভব হচ্ছে। সার, কীটনাশক, বীজ ও চাষাবাদের ক্ষেত্রে আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহারের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি। কৃষিকে তথ্যপ্রযুক্তি নির্ভর এবং যান্ত্রিকীকরণের মাধ্যমে সম্প্রসারণ করতে হবে। সরকার কৃষকের জন্য সকল প্রকার সহযোগিতা দিচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, কৃষকদের স্বল্প সুদে ঋণ দেয়া হচ্ছে, মর্টগেজ ছাড়া ঋণ দেয়া হচ্ছে এমনকি বর্গাচাষিদেরকে ঋণ দেয়া হচ্ছে।

নেছারাবাদ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মোশারেফ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, পিরোজপুর-এর উপপরিচালক চিন্ময় রায় ও নেছারাবাদ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুল হক। নেছারাবাদ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হামিদ, সাধারণ সম্পাদক এস এম ফুয়াদ, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যানগণসহ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর ও উপজেলার অন্যান্য সরকারি দপ্তরের কর্মকর্তাগণ এ সময় উপস্থিত ছিলেন। এর আগে মন্ত্রী কৃষি প্রযুক্তি মেলা উপলক্ষে আয়োজিত বর্ণাঢ্য র‌্যালিতে অংশগ্রহণ করেন এবং মেলার বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখেন।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: