প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

এস হোসেন আকাশ

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি

ভিক্ষুকের কোলে ফুটফুটে নবজাতক রেখে পালিয়ে গেছে মা

   
প্রকাশিত: ১০:৪০ অপরাহ্ণ, ২৫ জানুয়ারি ২০২০

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে দুই থেকে তিন দিন বয়সী এক নবজতাক কন্যা ভিক্ষুকের কোলে রেখে পালিয়ে গেছে মা। শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) রাত ৮টার দিকে ভৈরব বাসস্ট্যান্ড দুর্জয়মোড়ের দক্ষিণপাশে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল এলাকার ইসলাম ফার্মেসীর সামনে বসা এক মহিলা ভিক্ষুকের কাছে কৌশলে নবজাতকটিকে রেখে ওই মা পালিয়ে যায়।

খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুবনা ফারাজানা নবজাতককে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. বুলবুল আহমেদ এর মাধ্যমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। বর্তমানে শিশুটি সেখানে রয়েছে। স্থানীয় সূত্র জানায়, শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) রাত ৮টার দিকে ইসলাম ফার্মেসীর সামনে বসা ভিক্ষুক মহিলার কাছে কালো চাদর গায়ে জড়ানো এক যুবতী খাবার খেয়ে আসার কথা বলে নবজাতকটিকে দিয়ে যায়।

কিন্তু অনেকক্ষণ পার হয়ে যাওয়ার পরও ওই যুবতী ফিরে না আসায় ভিক্ষুক মহিলা বিষয়টি ফার্মেসীর মালিক আশরাফুল আলম মুকুলকে জানান। ফার্মেসী মালিক আশরাফুল আলম মুকুল বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুবনা ফারাজানাকে জানালে তিনি এলাকাবাসীর সহযোগিতায় উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. বুলবুল আহমেদ এর মাধ্যমে নবজাতকটিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান।

বর্তমানে শিশুটি হাসপাতালের চিকিৎসক ও নার্সদের তত্ত্বাবধানে রয়েছে। এছাড়া হাসপাতালে দ্বিতীয় তলায় মহিলা ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন এক রোগীর আত্মীয় শিশুটিকে দেখাশোনা করছেন। হাসপাতাল সূত্র জানিয়েছে, শিশুটি দুই থেকে তিন দিন বয়সী হবে। এছাড়া ফুটফুটে এই শিশুটি সুস্থ রয়েছে।

ভৈরব থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. মহসীন জানান, আশরাফুল নামে এক যুবক শিশুটিকে থানায় নিয়ে আসে। তখন তিনি ঘটনা খুলে বললে এ বিষয়ে থানায় জিডি করার পর উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে ঘটনাটি অবহিত করে শিশুটিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের তত্ত্বাবধানে দেয়া হয়।

ভৈরব উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুবনা ফারজানা বলেন, আপাতত শিশুটি হাসপাতালে থাকবে। আগামীকাল অফিস খোলা হলে আদালতের অনুমতিক্রমে সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করব। সমাজসেবা অফিসের কর্মকর্তারা আগামীকাল কিশোরগঞ্জ আদালতে বিষয়টি জানাবেন। তিনি বলেন, শিশুটিক দত্তক নিতে একজন ফোন দিয়েছিল, কিন্তু আদালতের অনুমতি ছাড়া আমরা দত্তক দিতে পারব না। আদালত যদি তাকে শিশুসদনে পাঠানোর আদেশ দেন সেই ব্যবস্থা করা হবে।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: