ভুল ছবিতে হেনস্তার শিকার মডেল অনন্যা

                       
প্রকাশিত: ২:২৯ অপরাহ্ণ, ৩১ মে, ২০১৯

রাজধানীর মিরপুরে সম্প্রতি এক কিশোরী নিজের সদ্যোজাত শিশুকে পাঁচতলা থেকে নিচে ফেলে হত্যা করেছে। এ ঘটনায় বিভিন্ন অনলাইন গণমাধ্যম ও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয় ভুল ছবি। যেখানে ওই কিশোরীর বদলে ব্যবহার করা হয় মডেল ও অভিনেত্রী শ্রাবন্তী অনন্যার ছবি। অনেকে এ পোস্টটি নিজের ব্যক্তিগত টাইমলাইনেও শেয়ার করেন।

সর্বশেষ বৃহস্পতিবার এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে অন্যন্যা। তিনি বলেন, ঘটনার দিন বিকেলে একটি অনলাইন খবরটি প্রকাশ করে। সেখানে ভুল করে আমার ছবিটি ব্যবহার করা হয়। ওই ঘটনার সঙ্গে আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। কারণ ঘটনার সেই মেয়েটি আমি নই। এরপর ফেসবুকের গ্রুপে গ্রুপে ছবিটি ছড়িয়ে পড়ে। পরে বিভিন্ন অনলাইনও আমার সেই ছবিটি ঝাপসা করে (ব্লার) তাদের খবরে ব্যবহার করে।

অনন্যা আরও বলেন, ছবিটি ভাইরাল হওয়ার পর থেকে আমার বন্ধু-বান্ধব ও পরিবারসহ পরিচিতরা এই ঘটনা সম্পর্কে আমার কাছে জানতে চেয়েছে। এতে আমি চরম বিব্রত হয়েছি। লোকজন আমাকে ভুল বুঝে খারাপ মনে করছে। তবে ওই ছবিটি প্রথমে কে বা কারা এবং কী উদ্দেশ্যে ভাইরাল করেছে তা আমি বুঝতে পারছি না।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মিরপুরের রূপনগর এলাকায় গত ২৫ মে দুপুর ১২টার দিকে সদ্যোজাত সন্তানকে পাঁচতলা থেকে ফেলে হত্যা করে এবার এসএসসি পাস করা এক কিশোরী। শিশুটিকে ফেলে দিতে সহযোগিতা করে কিশোরীর মা ও সৎ বাবা। পল্লবী থানা পুলিশ ওই কিশোরী ও তার সৎ বাবাকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে।

এ বিষয়ে অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) নাজমুল ইসলাম বলেন, ভিকটিম আমাদের কাছে অভিযোগ করেছেন। অভিযোগের মধ্যে আছে মিথ্যা তথ্য প্রচারকারী ফেসবুক আইডি, গ্রুপ, পেজ ও অনলাইন নিউজ পোর্টালগুলো। আশা করি, সবাই সবার ভুল বুঝতে পেরে নতুন করে দুঃখ প্রকাশ করে পোস্ট দেবেন। নিউজ পোর্টালগুলোর উচিত নিউজটি উল্লেখ করে ক্ষমা চেয়ে নতুন নিউজ করা। যারা শুরুতে মিথ্যা তথ্য দিয়ে পোস্ট দিয়েছে তাদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

বিডি২৪লাইভ/এইচকে

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


পাঠকের মন্তব্য:

© স্বত্ব বিডি২৪লাইভ মিডিয়া (প্রাঃ) লিঃ
এডিটর ইন চিফ: আমিরুল ইসলাম আসাদ
বাড়ি#৩৫/১০, রোড#১১, শেখেরটেক, ঢাকা ১২০৭

ফোন: ০৯৬১১৬৭৭১৯০, ০৯৬১১৬৭৭১৯১
ইমেইল: info@bd24live.com