প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মানিকগঞ্জে বখাটের উৎপাতে এক ছাত্রীর স্কুলে যাওয়া বন্ধ

   
প্রকাশিত: ১০:৪১ অপরাহ্ণ, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সাহিদুজ্জামান সাহিদ, মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি: মানিকগঞ্জর সাটুরিয়া উপজেলার নবম শ্রেণীর এক ছাত্রী বখাটের উৎপাতে বিদ্যালয়ে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। বখাটের উৎপাতে ভুক্তভোগীর মা হেলেনা বেগম গতকাল (২১ শে ফেব্রুয়ারি) সাটুরিয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছে। সাটুরিয়া উপজেলার দরগ্রাম ইসলামিয়া সিনিয়র মাদ্রাসার নমব শ্রেণীর ছাত্রী। সে দরগ্রাম ইউনিয়নের বিলপুলি গ্রামের মেয়ে। একই গ্রামের ইনাম আলীর পুত্র লিটন (১৮) প্রায় এক বছর ধরে মাদ্রাসায় যাওয়ার আসার পথে বিরক্ত করে আসছে।

জানাযায়, ইতোপূর্বে বিষয়টি গ্রামবাসীর নজরে আসলে লিটনকে একধিকবার শাসন করা হয়। এর পর ৪ মাস লিটক ঐ ছাত্রীকে কোন উৎপাত না করলেও গত বৃহস্পতিবার রাতে তালা ভেঙ্গে ঘরের প্রবশ করার চেষ্টা করে। বখাটের উপস্থিতি টেরপেয়ে চিৎকার করলে লিটন পালিয়ে যায়। ছাত্রীর মা হেলেনা বেগম, মেয়ে আমার মাদ্রাসায় যেতে চায়না। করন জানতে চাইলে সে বলে পাশের বাড়ির লিটন তাকে রাস্তা ঘাটে বিরক্ত করত। আমার স্বামী ৯ বছর ধরে দেশের বাহিরে থাকে। আমি এক ছেলে ও এক মেয়ে কে নিয়ে বাড়ি থাকি। এভাবে পথে ঘাটে বিরক্ত কারায় আমার মেয়ে মাদ্রাসায় যেতে পারছে না। গেল দুই মাসে দুই বার তালা ভেঙ্গে ঘরের প্রবেশ করার চেষ্টা করেছে লিটন।

নবম শ্রেণীর সেই ছাত্রী বলেন, আমি মাদ্রাসা কিংবা বাড়ির বাহিরে গেলেও লিটন আমার পিছু নেয়। সারা পথ নানা কটু কথা বলে, ভয় দেখায়। আমি পড়া লেখা করতে চাই, নিয়মিত মাদ্রাসায় যেতে চাই। এ বিষয় সাটুরিয়া থানার এস, আই মো. আনিস বলেন, লিখিত আভিযোগটি আমাকে তদন্ত করতে দেওয়া হয়েছে। তদন্ত করে দোষী প্রমাণীত হলে আসামী লিটন কে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: