ফ্রিতে ব্রেকিং নিউজ এ্যালার্ট

মুশফিকের যে কঠিন প্রশ্নের দারুণ জবাব দিলেন আকবর

                       
প্রকাশিত: ৯:২৭ পূর্বাহ্ণ, ১১ মে, ২০২০

বাংলাদেশে প্রথম যুব বিশ্বকাপ জয়ের অধিনায়ক আকবর আলীর দুর্দান্ত ব্যাটিং ইতিহাস স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে। আকবরের এমন অধিনায়কত্ব ও দিকনির্দেশনা বুদ্ধি বিবেক এ জয় এনে দিয়েছে। ভারতের বিপক্ষে আকবরের জয়কে ছিনিয়ে আনা অনেক মেধার ও বুদ্ধির ব্যাপার। জয়কে ভারতের হাত থেকে কবজ করা আকবর প্রশংসার আবদার। ঠাণ্ডা মাথায় ধৈর্য্য ধরে খেলা ইনিংসই শিরোপার স্বাদ এনে দিয়েছে আকবর। শনিবার (৯ মে) ফেসবুক লাইভে আকবর আলীর সেই অসামান্য ব্যাটিং শৈলির প্রশংসা করলেন মুশফিকুর রহীম। আকবর প্রসঙ্গে মুশফিক বলেন, ‘আমি আসলে অত ছোট বয়সে এত প্রতিভাধর ছিলাম না। আকবর আলীর পারফর্মেন্স ও তার ধৈর্য্য দেখে আমি বিস্মিত হয়েছিলাম।’

এরপরই আকবরের উদ্দেশ্যে কড়া প্রশ্ন ছুড়েন মুশফিক। তিনি বলেন, ভারতের সঙ্গে ফাইনালে উইকেটে যাওয়ার অল্প কিছুক্ষণ পর হঠাৎ এক স্পিনারকে স্লগ সুইপ করে ডিপ মিড উইকেটের ওপর দিয়ে ছক্কা হাঁকাল আকবর। ওই সময় দল ছিল চাপে। শটটি ছক্কা না হয়ে সীমানার আশপাশে ক্যাচও হয়ে যেতে পারত। তাই আমি জানতে চাই তখন ওই শট কেন খেলল আকবর? নাকি হুট করে হয়ে গেছে ব্যাপারটা?

অগ্রজপ্রতিম মুশফিকের এমন কড়া প্রশ্নে মোটেই বিচলিত হননি আকবর। জবাব তিনি বলেন, আসলে সেদিন ৪ উইকেট হারানোর পর ভারতীয় ফিল্ডাররা ৩০ গজের ভেতরে এসে ফিল্ডিং করছিল। যে কারণে আমরা স্বচ্ছন্দে সিঙ্গেলস-ডাবলস নিতে পারছিলাম না। ভারতীয়রা যে টার্গেট দিয়েছিল তা এভাবে সিঙ্গেলস নিয়েই পার করা যেত। সেটা ভেবেই হয়তো তাদের বেশিরভাগ ফিল্ডার ৩০ গজের ভেতরে চলে এসেছিল। ওই সময় আমার মনে হলো কয়েকটা শট তুলে মেরে বাউন্ডারি পার করতে পারলে হয়তো ফিল্ডারদের ছড়িয়ে ছিটিয়ে দেবে ওরা। সে সুযোগে সিঙ্গেলস নেয়া সহজ হবে। সেই ভাবনা থেকেই ছক্কা হাঁকিয়েছিলাম। এবং আমি সফলও হয়েছিলাম। ওই ছয়ের পর ভারতীয়রা ফিল্ডারদের ওপেন করে দেয়।

কেএ/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


পাঠকের মন্তব্য:

© স্বত্ব বিডি২৪লাইভ মিডিয়া (প্রাঃ) লিঃ
এডিটর ইন চিফ: আমিরুল ইসলাম আসাদ
বাড়ি#৩৫/১০, রোড#১১, শেখেরটেক, ঢাকা ১২০৭

ফোন: ০৯৬১১৬৭৭১৯০, ০৯৬১১৬৭৭১৯১
ইমেইল: info@bd24live.com