প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

এম. সুরুজ্জামান

শেরপুর প্রতিনিধি

মোটরসাইকেল কিনে না দেওয়ায় ঘুমন্ত মাকে পেট্রোল দিয়ে পুড়িয়ে হত্যা

   
প্রকাশিত: ৯:২৩ অপরাহ্ণ, ১৭ অক্টোবর ২০২০

ছবি: প্রতিনিধি

শেরপুরের শ্রীবরদীতে মোটরসাইকেল কিনার টাকা না দেওয়ায় পেট্রোল দিয়ে ঘুমন্ত অবস্থায় মাকে পুড়িয়ে হত্যা করার অভিযোগ ওঠেছে ছেলের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ছেলে হানিফ মিয়াকে (১৪) গ্রেফতার করেছে শ্রীবরদী থানা পুলিশ। হানিফ পৌর শহরের সদাগর ওরফে সদা মিয়ার ছেলে। ১১ অক্টোবর গভীর রাতে পৌরশহরের তাতিহাটী পশ্চিম মহল্লায় এই ঘটনা ঘটে। শনিবার (১৭ অক্টোবর) বিকেলে হানিফকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

অভিযোগ ও থানা সূত্রে জানা গেছে, ১১ অক্টোবর সকালে মোটর সাইকেল ক্রয় করার জন্য হানিফ তার মা মোছা: হনুফা বেগম (৪০) এর নিকট টাকা চায়। টাকা না দেওয়ায় হানিফ গভীর রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় মায়ের শরীরে পেট্রোল ছিটিয়ে গ্যাস লাইট দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে বাড়ির লোকজন হনুফা বেগমকে উদ্ধার করে প্রথমে শেরপুর সদর হাসপাতাল পরবর্তীতে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন। পরে হনুফার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে শেখ হাসিনা বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জন ইনস্টিটিউটে প্রেরণ করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) সকালে মা হনুফার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহতর বড় ভাই দুলাল মিয়া বাদী হয়ে শ্রীবরদী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

এ ব্যাপারে শ্রীবরদী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ রুহুল আমিন তালুকদার বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে হানিফ মিয়াকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

এআইআর/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: