প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

যুব উন্নয়ন সূচক চূড়ান্ত করলো যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়

   
প্রকাশিত: ১১:০১ অপরাহ্ণ, ৬ আগস্ট ২০২০

যুব উন্নয়ন সূচক (Youth Development Index Framework) চূড়ান্তকরণের লক্ষ্যে আজ যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মোঃ জাহিদ আহসান রাসেলের সভাপতিত্বে জাতীয় স্টিয়ারিং কমিটির একটি সভা ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় প্রথমবারের মতো বাংলাদেশের Youth Development Index 2019 চূড়ান্ত করা হয়েছে।

সভাপতির বক্তব্যে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের বিশাল জনগোষ্ঠীর এক তৃতীয়াংশ যুব। এই যুবদের যথোপযুক্ত ব্যবহার নিশ্চিতকরণের মাধ্যমে ডেমোগ্রাফিক ডিভিডেন্ড এর সর্বোচ্চ সুবিধা নিশ্চিত করতে সরকার Youth Development Index প্রণয়নের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে আজকের সভায় এটি চূড়ান্ত করা হয়েছে। এছাড়া যুব উন্নয়নে ২০১৭ সালে সরকার একটি বাস্তবভিত্তিক সময়োপযোগী জাতীয় যুব উন্নয়ন নীতি প্রণয়ন করে এবং সে যুব নীতি বাস্তবায়নে এখন নিরন্তর কাজ করা হচ্ছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, যুব উন্নয়ন সূচক প্রণয়নের মধ্যে দিয়ে সরকার যুব উন্নয়নে নতুন দিগন্তের দ্বার উন্মোচন করলো। যুব সম্প্রদায়কে কিভাবে শক্তিশালী সম্পদে রূপান্তর করা যায় এটি তারই একটি দলিল। এটি এ দেশের যুবদের ভবিষ্যৎ চাহিদা নিরূপণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

যুব উন্নয়ন সূচকের গুরুত্ব তুলে ধরে প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, জাতীয় যুব নীতি ২০১৭ বাস্তবায়নের জন্য প্রয়োজন গবেষণাভিত্তিক কিছু উপাদান যার ওপর ভিত্তি করে যুব উন্নয়নমূলক পদক্ষেপ গ্রহণ করা যায়। বাংলাদেশ যুব উন্নয়ন সূচক ২০১৯ এরই একটি পদক্ষেপ। এ সূচকে যুবদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কর্মসংস্থান, অংশগ্রহণ ও অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়ন-সহ নানা বিষয়ে আলোকপাত করা হয়েছে। যুব উন্নয়ন সূচকের মাধ্যমে যুব উন্নয়নের জন্য গুরুত্বপূর্ণ নিয়ামকসমূহ নির্ধারণ করা যাবে। একইসাথে যুব উন্নয়নের জন্য যে সকল চ্যালেঞ্জ বা অসুবিধা রয়েছে সেগুলো সনাক্ত করে করণীয় নির্ধারণে সহায়তা করবে এই ইয়ুথ ডেভেলপমেন্ট ইনডেক্স। দক্ষিণ এশিয়া-সহ বিশ্বের অনেক দেশে এটি করা হয়েছে। এ সূচক জাতীয় ও অঞ্চলভিত্তিক যুব উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রণয়ন পরিবর্তন পরিবর্ধনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

প্রতিমন্ত্রী Youth Development Index প্রণয়নে সার্বিক পৃষ্ঠপোষকতার জন্য UNFPA কে ধন্যবাদ জানান। সভায় যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ আখতার হোসেন-সহ জাতীয় স্টিয়ারিং কমিটির সদস্যবৃন্দ, UNFPA এর প্রোগ্রাম এনালিস্ট (A & Y) ড. মুহাম্মদ মুনির হুসাইন, ডিস্ট্রিক্ট ফ্যাসিলেটর শুভাশীস মনিগ্রাম ও বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা জুম মিটিংয়ে অংশগ্রহণ করেন।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: