প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

রাজধানীর নিচু এলাকার বন্যা পরিস্থিতি অবনতি

   
প্রকাশিত: ১২:৩২ পূর্বাহ্ণ, ১ আগস্ট ২০২০

ছবি: ফাইল ফটো

যমুনা নদীর পানি ১২৮ সেন্টিমিটার থেকে পর্যায়ক্রমে মোট ৭৭ সেন্টিমিটার কমে বিপৎসীমার ৫১ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। প্রবল বৃষ্টিপাত ও উজান থেকে নেমে আসা ঢলে জেলার সারিয়াকান্দি পয়েন্টে যমুনা নদীতে পানি বাড়তে থাকে।

এদিকে, পদ্মা-যমুনার পানি কমতে থাকলেও বাড়ছে ঢাকার আশপাশের নদীগুলোর পানি। এতে রাজধানীর নিচু এলাকাগুলোর বন্যা পরিস্থিতির কিছুটা অবনতি হয়েছে। এদিকে, উত্তরাঞ্চলের বন্যা পরিস্থিতি উন্নতির দিকে। তবে, পানি আবারো বাড়তে থাকায় তলিয়ে যাচ্ছে ধরলা ও তিস্তা পাড়ের নতুন নতুন এলাকা। ব্রহ্মপুত্রে কমলেও কুড়িগ্রামে আবারো বেড়েছে ধরলার পানি। এতে জেলায় তৃতীয় দফা বন্যার শঙ্কা।

বগুড়া জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) সহকারী প্রকৗশলী মো. হুয়ায়ুন কবির জানান, যমুনা নদীতে বিপৎসীমা নির্ধারণ করা হয় ১৬ দশমিক ৭০ মিটার। সন্ধ্যা ৬টার হিসেব অনুযায়ী নদীর পানি ১৭ দশমিক ২১ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। অর্থাৎ বিপৎসীমার ৫১ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছে।

ঢাকার পাশে গাজীপুরে তুরাগ, বংশী ও ঘাটাখালীতে পানি বাড়ছে। পাতিতে ভাসছে কালিয়াকৈর উপজেলার ১১২টি গ্রাম। পানিবন্দি মানুষ ভুগছে বিশুদ্ধ পানির অভাবে। পয়:ব্যবস্থাও নাজুক। ৮টি আশ্রয় কেন্দ্রে রয়েছে ১২৪টি বন্যার্ত পরিবার। প্রশাসন থেকে খাদ্য সহায়তা দেয়া হয়েছে প্রায় ৪০ হাজার পরিবারকে।

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: