মোঃ আসাদুজ্জামান

বরগুনা প্রতিনিধি

রিফাত হত্যার রায়: জেলগেট ও আদালত প্রাঙ্গণে নিরাপত্তা জোরদার

   
প্রকাশিত: ৯:২৮ পূর্বাহ্ণ, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০

বহুল আলোচিত বরগুনার আলোচিত শাহনেওয়াজ রিফাত (রিফাত শরীফ) হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করা হবে আজ বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর)। রায় ঘোষণাকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তার চাদরে মুড়ে দেওয়া হয়েছে জেলগেট ও আদালত প্রাঙ্গণ। আদালত ও এর আশপাশের এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে বাড়তি পুলিশ।

বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর) সকালে আদালত প্রাঙ্গণে গিয়ে দেখা গেছে, আদালত প্রাঙ্গণজুড়ে পুলিশের নিরাপত্তা বৃদ্ধি করা হয়েছে। বসানো হয়েছে নিরাপত্তা চৌকি। আদালতে আগত আইনজীবী, সাংবাদিক ও সাধারণ মানুষকে তল্লাশি করে ভেতরে প্রবেশ করানো হচ্ছে।

এ মামলার প্রাপ্ত বয়স্ক আসামিরা হলেন- রাকিবুল হাসান রিফাত ফরাজি (২৩), আল কাইউম ওরফে রাব্বি আকন (২১), মোহাইমিনুল ইসলাম সিফাত (১৯), রেজওয়ান আলী খান হৃদয় ওরফে টিকটক হৃদয় (২২), মো. হাসান (১৯), মো. মুসা (২২), আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি (১৯), রাফিউল ইসলাম রাব্বি (২০), মো. সাগর (১৯) ও কামরুল ইসলাম সায়মুন (২১)।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে নয়ন ও তার সহযোগী সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে রামদা দিয়ে কুপিয়ে রিফাত শরীফকে গুরুতর আহত করে। এরপর বীরদর্পে অস্ত্র উঁচিয়ে এলাকা ত্যাগ করে তারা। গুরুতর আহত রিফাত বরিশাল শের-ই- বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওই দিনই মারা যান।

গত ১ সেপ্টেম্বর রিফাত শরীফ হত্যা মামলায় রিফাতের স্ত্রী মিন্নিসহ ২৪ জনের বিরুদ্ধে বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে দুই ভাগে বিভক্ত অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দেয় পুলিশ। একই সঙ্গে রিফাত হত্যা মামলার এক নম্বর আসামি নয়ন বন্ড বন্দুকযুদ্ধে নিহত হওয়ায় তাকে মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। গত ১ জানুয়ারি রিফাত হত্যা মামলার প্রাপ্তবয়স্ক ১০ আসামির বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেন বরগুনার জেলা ও দায়রা জজ আদালত।

অন্যদিকে গত ৮ জানুয়ারি রিফাত হত্যা মামলার অপ্রাপ্তবয়স্ক ১৪ আসামির বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেন বরগুনার শিশু আদালত। এ মামলার চার্জশিটভুক্ত প্রাপ্তবয়স্ক আসামি মো. মুসা এখনো পলাতক রয়েছেন। এছাড়াও নিহত রিফাতের স্ত্রী মিন্নিসহ অপ্রাপ্তবয়স্ক ৮ আসামি উচ্চ আদালত এবং বরগুনার শিশু আদালতের আদেশে জামিনে রয়েছে।

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: