প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মনজুরুল ইসলাম

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি

শিক্ষার্থীদের হাতে হাতে নতুন বই

   
প্রকাশিত: ৪:১৬ অপরাহ্ণ, ১ জানুয়ারি ২০২০

ময়মনসিংহের বিভিন্ন বিদ্যালয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে বই উৎসবের আয়োজনের মধ্য দিয়ে ইংরেজী বছরের প্রথম দিনেই শিক্ষার্থীদের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে নতুন বছরের নতুন বই। আর নতুন বই হাতে পেয়ে শিক্ষার্থীরা ছিলো আনন্দে উদ্বেল, বাঁধভাঙা উচ্ছাসে মেতে ওঠে শিক্ষার্থীরা। নতুন বইয়ের গন্ধ শুঁকে ভিন্ন আনন্দে ঘরে ফিরে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা। প্রতিটি বিদ্যালয়েই বিরাজ করে উৎসবের আমেজ।

বুধবার (১ জানুয়ারী) সকালে ময়মনসিংহ জিলা স্কুলে বছরের প্রথম দিন বই উৎসর আয়োজনের মধ্য দিয়ে নতুন বই বিতরণ কার্যক্রম শুরু করা হয়। অনুষ্ঠানে ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন বিভাগীয় কমিশনার খোন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা(মাউশি) ময়মনসিংহ অঞ্চলের উপ পরিচালক আবু নূর মো. আনিসুল ইসলাম চৌধুরী, ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান গাজী হাসান কামাল, জেলা শিক্ষা অফিসার রফিকুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(শিক্ষা ও আইসিটি) সমর কান্তি বসাক, জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা মোহছিনা খাতুন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিভাগীয় কমিশনার বলেন, ইংরেজী বছরের প্রথম দিনে শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দেওয়ার ফলে লেখাপড়ার মান বৃদ্ধি পেয়েছে। ঝকঝকে নতুন বই হাতে পেয়ে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা উচ্ছসিত হয়েছে। এভাবে উৎসব করে বই বিতরণকে বর্তমান সরকারের বিশাল সাফল্য বলে তিনি উল্লেখ করেন।

প্রাথমিক স্তরে ময়মনসিংহ জেলার ১৩টি উপজেলায় ৪হাজার ৮০৭টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৮লাখ ৬৯হাজার ৯৯০ জন ছাত্রছাত্রীর মাঝে ৪০লাখ ৬৪হাজর ৫১০ কপি বই বিতরণ করা হয়েছে।

এদিকে জেলায় মাধ্যকি স্তরে দাখিল ও ইবতেদায়ীসহ ১ হাজার ২টি বিদ্যালয়ে ৬লাখ ৪৫হাজার ৭৭৬ জন ছ্ত্রাছাত্রীর মাঝে ৮৩ লাখ ২৫ হাজার ৯৫১টি বই ছাত্রছাত্রীদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে।

বিভাগের চার জেলার প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের ১১ হাজার ১৬৯টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রায় ২৯ লাখ শিক্ষার্থীর হাতে তুলে দেয়া হয় প্রায় ৩ কোটি নতুন বই।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: