সংস্কৃত ভাষায় কথা বললে নিয়ন্ত্রণে থাকে কোলেস্টেরল ও ডায়াবেটিস: বিজেপি’র এমপি

   
প্রকাশিত: ৫:২৪ অপরাহ্ণ, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯

ভারতে সংস্কৃত ভাষার প্রসারে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ বিজেপি সরকার। তাই তিনটি সংস্কৃত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে স্বীকৃতি দিতে লোকসভায় আনা হয় সংস্কৃত বিশ্ববিদ্যালয় বিল। বিল নিয়ে আলোচনার সময় বিজেপি এমপি গণেশ সিং বলেন, ‘মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার মতে, যদি কম্পিউটার প্রোগ্রামিং সংস্কৃতে করা হয়ে তাহলে তা নিখুঁত হয়। আমেরিকার একটি গবেষণা সংস্থাও সংস্কৃত নিয়ে তাদের উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছে। তারা গবেষণা করে দেখেছে যে প্রতিদিন সংস্কৃতে কথা বলা দেহের নার্ভ সিস্টেমকে উজ্জীবিত করে। ডায়াবেটিস ও কোলেস্টেরলকে সমুদ্রে ছুড়ে ফেলে দেয়।’

বুধবার (১১ ডিসেম্বর) সংসদে এই বিলটি উত্থাপন করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রতাপ চন্দ্র সারঙ্গী। বিশ্বের সবচেয়ে প্রাচীন ভাষা নিয়ে বলতে গিয়ে তিনি বলেন, সংস্কৃত খুবই নমনীয় একটি ভাষা। এতে একটি বাক্যকে বিভিন্নভাবে বলা যায়। তিনি বলেন, ‘ব্রাদার ও কাউ এর মতো ইংরেজি শব্দগুলোও সংস্কৃত থেকেই জন্ম নিয়েছে। আর বিশ্বের প্রাচীন এই ভাষার প্রচারের চেষ্টা অন্য কোনো ভাষার ওপর প্রভাব ফেলবে না।’

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: