প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মোস্তফা কামাল

সখিপুর, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

সখীপুরে মডার্ন ডক্টরস হসপিটালে সিজারে রোগীর মৃত্যু, স্বজনদের ভাংচুর; পরে সমঝোতা

   
প্রকাশিত: ১২:৫৬ অপরাহ্ণ, ২৭ নভেম্বর ২০২০

টাঙ্গাইলের সখীপুরে ঢাকা রোডে বৃহস্পতিবার দুপুরে মডার্ন ডক্টরস হাসপাতালে এক প্রসূতিকে সিজার করার সময় এক প্রসূতির মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) দুপুরের দিকে সখীপুরে ঢাকা রোডে অবস্থিত মডার্ন ডক্টরস হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে।

মৃত্যুর খবর পেয়ে মৃতের স্বজনরা হাসপাতাল ভাংচুর করে। খবর পেয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান জুলফিকার হায়দার কামাল লেবু, ইউএনও চিত্রা শিকারী, সখীপুর থানার ওসি মো.আমির হোসেন,উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার শাহীনুর রহমান ও উপজেলা আ.লীগের সাংগঠনিক অধ্যাপক নজরুল ইসলাম খানসহ আ’লীগ ও এর সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন। পরে উপজেলা চেয়ারম্যান জুলফিকার হায়দার কামাল লেবু, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি শহিদুল ইসলাম, উপজেলা আ’লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক নজরুল ইসলাম খান, উপজেলা যুবলীগ আহবায়ক ক্লিনিক মালিক সমিতির সভাপতি এম এ সবুর, উপজেলা যুবলীগ সাবেক সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর তালুকদার, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মির্জা শরিফুল ইসলাম ও মৃতের স্বজনদের উপস্থিতিতে ওই হাসপাতালের মালিক ডা. আনোয়ার হোসেন এর সাথে সমঝোতা হয়েছে। সমঝোতা হওয়ায় থানায় কোন মামলা করেনি এবং মৃতের স্বজনরা মৃতদেহ ও কন্যা নবজাতককে নিয়ে বাড়ি চলে যায়। নবজাতকের পিতার নাম লিটন মিয়া বাড়ি বাসাইল উপজেলার ময়থা গ্রামে। মৃত রুনু আক্তার সখীপুরের হৃদয় পাশার ভাতিজি।

সখীপুর থানার ওসি মো. আমির হোসেন বলেন, সিজার করার সময় মৃত্যুবরন করা রুনুর স্বজনরা প্রথমে উত্তেজিত হয়ে হাসপাতালে হট্টগোল করছিল, খবর পেয়ে পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। পরে স্বজনরা বুঝতে পারে ডাক্তারদের গাফিলতিতে মৃত্যু হয়নি। এ কারণে তারা থানায় কোন অভিযোগ করেনি। সদ্য ভুমিষ্ট নবজাতক সুস্থ আছে।

এমআর/এনই

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: