প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

সরকারি কাজে আর ব্যবহার হবে না ইট

   
প্রকাশিত: ১২:৩৮ পূর্বাহ্ণ, ২৬ জানুয়ারি ২০২০

সরকারি কাজে প্রচলিত ইটের ব্যবহার ২০২৫ সালের মধ্যে শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনা হবে বলে জানিয়েছেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন। শনিবার (২৫ জানুয়ারি) রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায়ে এক গোলটেবিল বৈঠকে তিনি এ তথ্য জানান।

শাহাব উদ্দিন বলেন, ইটের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত ব্লক পরিবেশ ও কৃষি বান্ধব এবং ব্যয় সাশ্রয়ী। এ জন্য সরকার ২০২৫ সালের মধ্যে সরকারি কাজে প্রচলিত ইটের ব্যবহার শূন্যের কোটায় নামিয়ে আনবে। পর্যায়ক্রমে দেশের সবাইকে ব্লকের ব্যবহারে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।

বিশ্বের অধিকাংশ দেশেই ইটের বিকল্প হিসেবে ব্লক ব্যবহার হচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ইটের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত ব্লক প্রস্তুতকারীদের সরকার আর্থিক প্রণোদনা দেবে। প্রস্তুতকারীদের কমানো হবে ট্যাক্স। এছাড়া এ কাজে কোনো প্রকার লাইসেন্স প্রয়োজন হবে না।

পরিবেশ বান্ধব উপায়ে ব্লক তৈরি হয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রচলিত ইট প্রস্তুতিতে কৃষি জমির উপরিভাগের উর্বর মাটি ব্যবহারের কারণে খাদ্য উৎপাদন কমে যাচ্ছে। ব্লকের ব্যবহার শুরু হলে কৃষি জমির উপরিভাগের মাটি এবং বনজ সম্পদের ব্যবহার কমে যাবে। এর কারণে খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত হবে। এছাড়া কার্বন নির্গমন কমার কারণে পরিবেশ সুরক্ষা পাবে।

এসএ/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: