নিজে নিজে জীবাণুমুক্ত হয়ে যাওয়া মাস্ক উদ্ভাবন করল ইসরায়েল

   
প্রকাশিত: ১০:১১ অপরাহ্ণ, ১৮ জুন ২০২০

বিশ্বের মানুষের চলার গতি থেমে দিয়েছে মরণঘাতী করোনা ভাইরাস। আর এ ভাইরাস থেকে বাঁচতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা দিয়ে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা। এ ব্যাধির সংক্রমণ রোধে মাস্ক পরাই এখগুরুত্বপূর্ণ ও বাধ্যতামূলক হয়ে উঠেছে। যুক্তরাজ্যসহ ইউরোপ, মধ্যপ্রাচ্য ও এশিয়ার অনেক দেশই মাস্ক পরাকে বাধ্যতামূলক করেছে। কেউ বাইরে বের হয়ে মাস্ক না পরলে তাকে গুনতে হবে বিপুল অঙ্কের জরিমানা, সঙ্গে জেলও-এমন আইনও করেছে কয়েকটি দেশ। লকডাউন উঠে যাওয়ায় বাইরে মানুষের সমাগমও বাড়ছে। কর্মস্থল যেমন খুলেছে, চালু হয়েছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানও। ফলে প্রতিদিন নতুন মাস্কের চাহিদা বাড়ছে। বিবিসি জানায়, এক মাস্ক একাধিকবার ব্যবহার করলে সেটি থেকে ভাইরাস সংক্রমণের আশঙ্কা থেকে যায়। এই আশঙ্কার মধ্যে স্বস্তিদায়ক খবর নিয়ে এলেন ইসরায়েলি বিজ্ঞানীরা।

ইসরায়েলের গবেষকরা বলছেন, তারা এমন একটি ফেইস মাস্ক উদ্ভাবন করেছেন, যা নিজে নিজে পরিষ্কার হয়ে যায়। এই মাস্কে একটি ইউএসবি পোর্ট আছে যেটি দিয়ে এটিতে বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া যায়। মাস্কের ভেতর কার্বন ফাইবারের একটি স্তর আছে, ইউএসবি সংযোগের মাধ্যমে যেটিকে ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত উত্তপ্ত করা যায়। এই তাপে করোনাভাইরাস মরে যায়।

তবে মাস্কটি যখন ইউএসবির মাধ্যমে জীবাণুমুক্ত করা হচ্ছে, তখন এটি না পরার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। এভাবে মাস্কটি জীবাণুমুক্ত করতে সময় লাগে ৩০ মিনিটের মতো। এই মাস্কটির পেটেন্টের জন্য গবেষকরা যুক্তরাষ্ট্রে আবেদন করেছেন। মাস্কটি বাজারে আসলে নিঃসন্দেহে প্রতিদিন নতুন নতুন মাস্ক পরার ঝামেলা থেকে মুক্তি পাবে মানুষ। তবে এই মাস্কের দাম কেমন হবে সেটি এখন পর্যন্ত জানা যায়নি।

কেএ/ডিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: