প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

৮ বছরের শিশুকে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ করছিলেন ২ প্রতিবেশী

   
প্রকাশিত: ৬:৩১ অপরাহ্ণ, ১৩ আগস্ট ২০২০

ছবি: প্রতীকী

সাভারে ৮ বছরের শিশু ধর্ষণের অভিযোগে এক বৃদ্ধ ও এক কিশোরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাদের বিরুদ্ধে পৃথক দুইটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করা হয়েছে। গতকাল বুধবার (১২ আগস্ট) দুপুরে সাভার সদর ইউনিয়ণের ৩নং ওয়ার্ড চাপাইন এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এর আগে সকালে ভুক্তভোগী শিশুর বাবা বাদী হয়ে সাভার মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

ধর্ষকরা হলো, নাটোর জেলার সিংড়া থানার মৃত যাদু প্রমাণিকের ছেলে আতাহার (৬০) ও অপরজন দিনাজপুর জেলার ফুলবাড়ী থনার রসুল উদ্দিন মন্ডলের ছেলে সোহাগ মন্ডল। বর্তমানে উভয়ের সাভারের চাপাইন, সিআরপি এলাকায় বসবাস করেন। পুলিশ জানায়, চাপাইন নিউ মডেল স্কুলের এক শিক্ষকের বাড়ির ভাড়াটিয়া আতাহার (৬০)। সে একটি নবনির্মিত পাঁচতলা ভবনের নিচে একটি কক্ষে কেয়ারটেকার হিসেবে থাকে। প্রতিবেশী শিশুটি তাকে নানা বলে ডাকে। সেই সুবাধে মেয়েটিকে চকলেটের লোভ দেখিয়ে সেই কক্ষে ডাকতো এবং ধর্ষণ করতো। গত ২৭ জুলাই থেকে বিভিন্ন সময়ে ধর্ষণ করে আসছিলো। অপরদিকে আরেক প্রতিবেশী সোহাগ নামে এক কিশোর শিশুটিকে কৌশলে পার্শ্ববর্তী ভবনের একটি কক্ষে নিয়ে গত ১০ আগস্ট ধর্ষণ করে। আবার পরের দিনও একইভাবে এই অপকর্ম করে। শিশুটি সোহাগকে মামা বলে ডাকতো। পরে ভুক্তভোগী শিশুটি নিজের খালাতো বোনকে ঘটনাটি খুলে বলে। পরে খালাতো বোন শিশুরটির বাবাকে জানায়। পরে বুধবার সকালে ভুক্তভোগীর শিশুর বাবা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। সাভার মডেল থানার এস আই তৌহিদ জানান, ভুক্তভোগী শিশুরটির বাবা ও মা দুইজন কর্মজীবী। ফলে কাজের জন্য সকালে বের হয়ে যেতে এই সুযোগ প্রতিবেশী ও কথিত নানা ও মামা সোহাগ এই শিশুটির সঙ্গে এই ঘৃণিত কাজ করে আসছিলো। তাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণের দু’টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

আরএএস/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: