এ আর রাশেদ

ইবি প্রতিনিধি

শূন্য হচ্ছে ইবির উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষের পদ

   
প্রকাশিত: ৬:৩৫ অপরাহ্ণ, ১৯ আগস্ট ২০২০

ছবি: প্রতিনিধি

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) বর্তমান উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন উর রশিদ আসকারী এবং কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সেলিম তোহার দায়িত্বের মেয়াদ শেষ হচ্ছে বৃহস্পতিবার (২০ আগস্ট)। ২১ আগষ্ট থেকে একইসঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের গুরুত্বপূর্ণ এই পদ দু’টি শূন্য হতে যাচ্ছে।

বুধবার (১৯ আগস্ট) বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এস এম অব্দুল লতিফ বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘চার বছরের দায়িত্ব পালন শেষে আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষের মেয়াদ শেষ হবে। ২০ আগস্টের পর নতুন করে নিয়োগদানের আগ পর্যন্ত এই পদ দু’টি শূন্য থাকবে।’

জানা যায়, ২০১৬ সালের ২১ আগস্ট ১২তম উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ পান বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. হারুন উর রশিদ আসকারী। একইদিনে কোষাধ্যক্ষ পদে আইন বিভাগের অধ্যাপক ড. সেলিম তোহাকে নিয়োগ দেওয়া হয়। চার বছরের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য মো. আব্দুল হামিদ তাদেরকে এ পদে নিয়োগ দেন।

এর আগে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে ইসলামী বিশ^বিদ্যালয়ের কোন উপাচার্যই তার দায়িত্বের মেয়াদ পূর্ন করতে পারেননি। ১২তম উপাচার্য হিসেবে অধ্যাপক ড. হারুন উর রশিদ ইবির ইতিহসে প্রথম, যিনি তার দায়িত্বকাল পূর্ন করতে চলেছেন। এর আগে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে ১১তম উপাচার্য অধ্যাপক ড. আব্দুল হাকিম সরকারও অপসারিত হন বলে জানা যায়।

এদিকে উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষ একইদিনে (২০১৬ সালের ২১ আগস্ট) নিয়োগ পাওয়ায় ২০ আগষ্ট শূন্য হবে পদ দু’টি। পদ দুটি শূন্য হবার পর কারা হবেন বিশ্ববিদ্যালয়ের পরবর্তী সর্বোচ্চ অবিভাবক? এ নিয়ে শুরু হয়েছে নানান জল্পনা-কল্পনা। পদ দুটিতে নিয়োগ পাওয়ার জন্য ইতোমধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতর ও বাইরের একাধিক শিক্ষক বিভিন্ন মহলে তদবির চালাচ্ছেন বলে শোনা যাচ্ছে।

 

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: