প্রচ্ছদ / স্পোর্টস / বিস্তারিত

কখনো না আসলেও ছিলেন বাংলাদেশের মানুষের হৃদয়ে

   
প্রকাশিত: ১০:০১ পূর্বাহ্ণ, ২৬ নভেম্বর ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

কখনই বাংলাদেশে আসা হয়নি ডিয়েগো ম্যারাডোনার। তারপরেও বাংলাদেশে ছিল তাঁর কোটি কোটি ভক্ত। কিশোর-তরুণসহ সব বয়সী মানুষের হৃদয়ে ছিলেন ফুটবলের এই জাদুকর। তার ভালো বা খারাপ যে কোনও খবরে নাড়া দিত বাংলাদেশের ভক্তদের হৃদয়। তার একমাত্র কারণ তার প্রতি ভালবাসা। ফুটবলে তার অসাধারণ নৈপুণ্য।

লাতিন আমেরিকার দেশ আর্জেন্টিনা। বাংলাদেশ থেকে হাজার মাইল দুরে। বলা যায় বাংলাদেশের মানুষ তাকে চিনতে শুরু করেন ১৯৮৬ সালে। তার নেতৃত্বে বিশ্বকাপ জয়ের পর থেকে। তার খেলা বা তার মাধ্যমেই বাংলাদেশের বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের ব্যাপক পরিচয় দূর দেশে আজেন্টিনারও।

যার ধারাবাহিকতা ১৯৯০, ১৯৯৪, ১৯৯৮, ২০০২, ২০০৬ সবশেষ ২০১৮ সাল। বিশ্বকাপ আসলেই বাংলাদেশের ফুটবলপ্রেমীদের মধ্যে উন্মাদনা শুরু হয়। বিশ্বকাপ মানেই বাড়ির ছাদে আর্জেন্টিনার নীল-সাদা পতাকা। বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মানেই আজের্ন্টিনা। আর আর্জেন্টিনা মানে ম্যারাডোনা। সেই ফুটবলের ঈশ্বরের বিদায়। কাঁদছেন তার দেশ থেকে হাজার মাইল দূরের কোটি কোটি ভক্ত।

আবেগী বাংলাদেশের ভক্তরা আর্জেন্টিনার জন্য হয়তো বিশ্বকাপ আসলেই উন্মদানায় মাতবেন। ভালবেসে উড়াবেন ম্যারডোনার দেশ আর্জেন্টিনারা পতাকা। কারণ ম্যরাডোনাহীন আর্জেন্টিনার দলকে সমর্থনের কারণটাও যে তিনিই।

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: