প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

ফরমান শেখ

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

আঙুলের ছাপ রেখে ভোটারদের বের করে দেয়ার অভিযোগ, সংঘর্ষ

   
প্রকাশিত: ১:৪৪ অপরাহ্ণ, ১৬ জানুয়ারি ২০২১

টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে ভোটারদের আঙুলের ছাপ (ফিঙ্গার প্রিন্ট) রেখে তাদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে নৌকা প্রতীকের সমর্থকদের বিরুদ্ধে। আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী মনিরুজ্জামান বকুল (নারিকেল গাছ) ও বিএনপি প্রার্থী এসএমএ ছোবহান (ধানের শীষ) এ অভিযোগ তোলেন। ধনবাড়ী সরকারি ডিগ্রি কলেজ ৮ নম্বর কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, শনিবার (১৬ জানুয়ারি) সকাল ৮টা এ পৌরসভায় শান্তিপূর্ণভাবে ইভিএম-এ ভোটগ্রহণ শুরু হয়। তবে ধনবাড়ী সরকারি ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্রে শুরু থেকেই থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। এ কেন্দ্রে বেশ কিছু ভোটারের আঙুলের ছাপ নিয়ে তাদের করে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। দফায় দফায় এ কেন্দ্রে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মনিরুজ্জামান বকুল বলেন, ‘আওয়ামী লীগের প্রার্থী খন্দকার মঞ্জুরুল ইসলাম তপনের লোকজন আমার এজেন্টদের বের করে দিয়েছে। আর ভোটারদের ফিঙ্গার প্রিন্ট রেখে তাদের বের করে দিয়ে নৌকা মার্কায় ভোট দিচ্ছে। শুধু এ কেন্দ্রেই না, সব কেন্দ্রের এমন ঘটনা ঘটছে। এ বিষয়ে প্রিজাইডিং অফিসারের কাছে অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।’

বিএনপি প্রার্থী এসএমএ ছোবহান বলেন, ‘ধনবাড়ি সরকারি ডিগ্রি কলেজে ৮ নম্বর কেন্দ্রসহ কয়েকটি কেন্দ্রে ভোটারদের আঙুলের ছাপ রেখে বের করে দিয়ে নৌকা প্রার্থীর সমর্থকরা নৌকায় ভোট দিচ্ছে। এখানে সুষ্ঠুভাবে ভোট হচ্ছে না।’

ওই কেন্দ্রের আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর এজেন্ট রাশেদুজ্জামান লিটন বলেন, ‘আমার সামনেই আওয়ামী লীগের লোকজন নৌকা মার্কায় ভোট দিচ্ছে। বাধা দিলে আমাকে তারা বের করে দেয়।’

ধনবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে বিশৃঙ্খলা: এ বিষয়ে জানতে ওই কেন্দ্রে প্রিজাইডিং অফিসারের দায়িত্বে থাকা সুজন নাথের অফিসে গেলে তার কক্ষটি তালাবদ্ধ পাওয়া যায়। কক্ষের সামনে পাহারায় থাকা আনসার সদস্য বলেন, ‘স্যার বাইরে তালা দিয়ে ভেতরে বসে আছেন।’

পরে তিনি তালা খুলে দেন। তখন প্রিজাইডিং অফিসার বলেন, ‘এখনও কেউ আমার কাছে অভিযোগ দেয়নি।’

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা করুনা সিন্ধু চাকলাদার বলেন, ‘ভোট সুষ্ঠুভাবে হচ্ছে। আমার কাছে কেউ কোনও অভিযোগ করেনি।’

এদিকে দুপুর ১২টার দিকে কেন্দ্রের বাইরে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি সমর্থিতদের মধ্যে ধাওয়াপাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় বিএনপি সমর্থিত সজল নামের এক যুবক গুরুতর আহত হন। তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: