প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

করোনার টিকা না নিতে পালিয়ে বেড়াচ্ছে ভারতের স্বাস্থ্যকর্মীরা

   
প্রকাশিত: ৫:১৪ অপরাহ্ণ, ২২ জানুয়ারি ২০২১

ভারতে প্রায় এক সপ্তাহ আগে করোনাভাইরাস টিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়েছে। এর আগে কোভিশিল্ড ও কোভ্যাক্সিন নামে দুটি টিকার অনুমোদন দেয় ভারত সরকার। এরপর ১৬ জানুয়ারি থেকে ভারতব্যাপী করোনা টিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়। কিন্তু এরই মধ্যে দেশটিতে টিকা নেয়ার পর তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। এতেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে দেশটির স্বাস্থ্যকর্মীরা। এখন টিকা না নিতে রীতিমতো পালিয়ে বেড়াচ্ছেন তারা।

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনা টিকা ভারতে কোভিশিল্ড নামে প্রস্তুত করেছে সিরাম ইন্সটিটিউট। যেসব হাসপাতালে করোনা টিকা দেয়া হচ্ছে তারা জানিয়েছে, টিকা গ্রহীতাদের কোভিশিল্ড নিতেই বেশি আগ্রহ। কিন্তু কোভ্যাক্সিন নিতে তাদের আপত্তি রয়েছে। কোভ্যাক্সিন তৈরি করেছে ভারত বায়োটেক।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, দিল্লির ডাক্তারদের কোভ্যাক্সিন নিতে খুব একটা আগ্রহ নেই। কারণ এই টিকা কতটুকু কার্যকর তা নিয়ে ডাটা এখনও পর্যাপ্ত নয়। যাদের প্রতিরোধ ব্যবস্থা দুর্বল বা ওষুধ ব্যবহার করছেন তাদের কোভ্যাক্সিন না গত ১৯ জানুয়ারি ভারত বায়োটেক একটি ফ্যাক্টশিট প্রকাশ করে। এমনকি কোনও স্বাস্থ্যগত সমস্যা বা অ্যালার্জি আছে কিনা তাও আগে থেকে জানাতে বলেছে তারা।

এদিকে দিল্লিতে কেন্দ্রীয় সরকার পরিচালিত মাত্র ছয়টি হাসপাতালে কোভ্যাক্সিন দেয়া হচ্ছে। যেখানে রাজ্যের সব সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে কোভিশিল্ড দেয়া হচ্ছে। এর ফলে স্বাস্থ্যকর্মীদের মধ্যে দ্বিধা ও অসন্তোষ দেখা দিয়েছে। বিহারের অনেক ডাক্তার এবং মেডিকেল শিক্ষার্থী তো কোভ্যাক্সিন নিতে চায় না বলে জানিয়েছে। কারণ এই টিকার তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়াল এখনও প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে।

কাওসার/নিএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: