প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

হারুন-অর-রশীদ

ফরিদপুর প্রতিনিধি

ফরিদপুরের সেই পৌর মেয়রকে হেলিকাপ্টারে ঢাকায় প্রেরণ

   
প্রকাশিত: ২:০০ অপরাহ্ণ, ৪ মার্চ ২০২১

সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত ফরিদপুরের নগরকান্দা পৌরসভার নব-নির্বাচিত মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকারকে বিশেষ এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে। বুধবার (৩ মার্চ) দিবাগত রাত ১টা ১০ মিনিটে বিমানবাহিনীর বিশেষ এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে তাঁকে ফরিদপুর থেকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়।

রাত ১টার দিকে বিমানবাহিনীর বিশেষ এয়ার অ্যাম্বুলেন্স ফরিদপুর নদী গবেষণা ইনস্টিটিউটের মাঠে অবতরণ করে। এর আগে অ্যাম্বুলেন্সে পৌর মেয়রকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে নদী গবেষণা ইনস্টিটিউটের মাঠে নেওয়া হয়।

এ সময় জেলা প্রশাসক অতুল সরকার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামাল পাশা, সুমন রঞ্জন সাহা, ফরিদপুর পৌরসভার মেয়র অমিতাভ বোসসহ নগরকান্দা ও সালথা উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাবৃন্দ ও আ.লীগ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

ফরিদপুর কোতোয়ালি থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) মো. শহিদুল ইসলাম জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত নগরকান্দা পৌর মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকারকে রাত ১টা ১০ মিনিটে বিমানবাহিনীর বিশেষ এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে ফরিদপুর থেকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়।

তিনি আরও জানান, দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত পৌর মেয়রকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে রাতে তাকে ঢাকার সিএমএইচে স্থানান্তর করা হয়। ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সার্জারি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান রতন কুমার সাহা জানান, দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত পৌর মেয়র নিমাই সরকারকে প্রাথমিকভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। কিন্তু তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁকে ঢাকার সিএমএইচে স্থানান্তর করা হয়েছে।

এর আগে বুধবার (০৩ মার্চ) রাত সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের জেলার নগরকান্দা উপজেলার কাইচাইল ইউনিয়নের কাইলের মোড় এলাকায় পৌর মেয়র ও তার পরিবারের সদস্যদের বহনকারী মাইক্রোবাসকে ধাক্কা দেয় একটি যাত্রীবাহী বাস।

দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলেই নগরকান্দা পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকারের স্ত্রী ও ছেলেসহ তিনজন নিহত হন। এ সময় গুরুতর আহত মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকারসহ আহতদের ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

নিহতরা হলেন- নগরকান্দা পৌরসভার মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকারের স্ত্রী সঞ্চিতা সরকার, ছেলে গৌরব সরকার ও পৌর যুবলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কামাল মাতুব্বর।

স্থানীয় সূত্র জানায়, নগরকান্দা পৌরসভার মেয়র নিমাই চন্দ্র সরকার, স্ত্রী সঞ্চিতা সরকার, ছেলে গৌরব সরকার ও কামাল মাতুব্বরসহ কয়েকজন ভাঙ্গা উপজেলায় একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে মাইক্রোবাসে নগরকান্দায় বাড়িতে ফিরছিলেন।

মেয়রকে বহনকারী মাইক্রোবাসে ধাক্কা দেয় জি এফ পরিবহনের যাত্রীবাহী বাস নগরকান্দা উপজেলার কাইচাইল ইউনিয়নের কাইলের মোড় এলাকায় পৌঁছালে চট্টগ্রামগামী যাত্রীবাহী জি এফ পরিবহনের বাস তাদের মাইক্রোবাসকে ধাক্কা দেয়। এতে পৌর ময়র নিমাই সরকারের স্ত্রী সঞ্চিতা সরকার ও কামাল মাতুব্বর নিহত হন।

আহত অবস্থায় পৌর মেয়র নিমাই সরকার ও তার ছেলে গৌরব সরকারকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে গৌরবের মৃত্যু হয়। ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় পৌর মেয়র নিমাই সরকারকে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক ছিল।

ভাঙ্গা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওমর ফারুক বলেন, যাত্রীবাহী বাসের ধাক্কায় পৌর মেয়রের স্ত্রী ও ছেলেসহ তিনজন নিহত হয়েছেন।

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: