প্রচ্ছদ / স্পোর্টস / বিস্তারিত

নাহিদুর রহমান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

রানের পাহাড় গড়ে ইনিংস ঘোষনা বাংলাদেশের

   
প্রকাশিত: ১২:০২ অপরাহ্ণ, ২৩ এপ্রিল ২০২১

টেস্ট ক্রিকেটে রানের পাহাড় বলতে আসলে কোন শব্দ নেই। তবুও বাংলাদেশের খড়ার মৌসুমে এই রানকে রানের পাহাড় বলা যেতেই পারে। তৃতীয় দিনে ৫৪১ রানে ইনিংস ঘোষনা করে বাংলাদেশ। উইকেট হারিয়েছিল ৭টি। ব্যাট হাতে ছিল মুসফিক ও তাসকিন। মুসফিক ১৫৬ বল খেলে ৬৮ রান করেছিল। আর তাসকিন ৬ রান।

এর আগে দ্বিতীয়দিনের খেলায় মুমিনুল-শান্ত মিলে বাংলাদেশের হয়ে তৃতীয় উইকেট জুটিতে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড গড়েন। দেশসেরা জুটির রেকর্ড গড়ার পর দারুণ এক ইনিংস খেলে সাজঘরে ফেরেন নাজমুল হোসেন শান্ত। এরপর আর বেশিক্ষণ ক্রিজে অবস্থান করতে পারেননি দলীয় অধিনায়ক ‍মুমিনুল হকও।

দ্বিতীয়দিনের খেলায় প্রথম উইকেট হিসেবে শান্তকে হারায় বাংলাদেশ। ম্যাচের ১২৫তম ওভারের খেলায় নিজে বল করে শান্তর তুলে দেয়া মামুলি ক্যাচ লুফে নেন লঙ্কান বোলার লাহিরু কুমারা। আউট হওয়ার পূর্বে ৩৭৮ বলে ১৬৩ রানের একটি দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন নাজমুল হোসেন শান্ত। তার খেলা ইনিংসটি ১৭টি চার এবং ১টি ছয়ে সাজানো।

এরপর ১৪০তম ওভারে ধনঞ্জয়া ডি সিলভার বলে লাহিরু থিরিমান্নের হাতে ক্যাচ তুলে দেন মুমিনুল হক। এদিন ব্যাট করতে নেমে টেস্ট ক্যারিয়ারে বিদেশের মাটিতে প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। টেস্টে এখন তার মোট সেঞ্চুরির সংখ্যা ১১টি। আউট হওয়ার পূর্বে ১২৭ রান করেন তিনি। তার ৩০৪ বলে খেলা ইনিংসটি ১১টি চারে সাজানো।

বুধবার ম্যাচের শুরুতে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ওপেনার সাইফের উইকেট হারিয়ে কিছুটা বিচলিত ছিল টাইগার শিবির। কিন্তু দ্বিতীয় উইকেটেই ঘুরে দাঁড়ায় সফররত বাংলাদেশ।

সুরাঙ্গা লাকমালের করা ম্যাচের প্রথম ওভারে দুটো চার মেরে দুর্দান্ত শুরু করেন টাইগার ওপেনার তামিম ইকবাল। এরপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি। দ্বিতীয় উইকেটে ব্যাট করতে আসা নাজমুল হাসান শান্তকে সঙ্গে নিয়ে দলীয় স্কোরটা বাড়াতে থাকেন তামিম। তামিম তুলে নেন তার ব্যক্তিগত ক্যারিয়ারের ৩০তম অর্ধ-সেঞ্চুরি। অন্যদিকে টেস্ট ক্যারিয়ারে নিজের দ্বিতীয় ফিফটি তুলে নেন শান্ত।

এই দুই টাইগার ব্যাটসম্যান মিলে গড়েন ১৪৬ রানের জুটি। ৯০ রানে তামিম ফিরলেও আপনতালে খেলতে থাকেন শান্ত। তৃতীয় উইকেটে অধিনায়ক মুমিনুল হক সঙ্গে নিয়ে বড় জুটি গড়ার পাশাপাশি রানের পাহাড়ই গড়ছে টাইগাররা। দুজন মিলে গড়েন অবিচ্ছিন্ন ১৫০ রানের জুটি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: বাংলাদেশ ৫৪১ রান ৭ উইকেট (ইনিংস ঘোষনা)। নাজমুল হোসেন শান্ত: ১৬৩ রান, মমিনুল হক: ১২৭ রান, তামিম: ৯০, লিটন: ৫০, মুসফিক: ৬৮ (অপরাজিত)

শ্রীলংকা: ভিসওয়া ফ্রেনান্দো: ৩৫ ওভার বল করে নিয়েছে ৪ উইকেট।

এআইআ/এইচি

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: