প্রচ্ছদ / বিনোদন / বিস্তারিত

শিল্পাকে আদালতের ভর্ৎসনা

   
প্রকাশিত: ১০:৩২ পূর্বাহ্ণ, ৩১ জুলাই ২০২১

স্বামী রাজ কুন্দ্রা গ্রেপ্তার হওয়ার পর আলোচনায় রয়েছেন বলিউড অভিনেত্রী শিল্পা শেঠি। তাকে নিয়ে সংবাদমাধ্যমে মিথ্যা প্রতিবেদন এবং ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্য আদালতের শরণাপন্ন হন এই অভিনেত্রী।

শুক্রবার (৩০ জুলাই) বম্বে উচ্চ আদালতে এই মামলার শুনানি হয়েছে। বিচারপতি গৌতম এস প্যাটেল এই মামলার বিচারক ছিলেন। শুনানিতে আদালতের ভর্ৎসনা মুখে পড়েন শিল্পা।

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আদালত শিল্পার আইনজীবীকে প্রশ্ন করেন— পুলিশের দেওয়া তথ্য চ্যানেলে সম্প্রচার করা হলে বা সংবাদপত্রে অথবা ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে প্রকাশিত হলে সেটা কীভাবে মানহানিকর? আদালতের পক্ষ থেকে জানানো হয়, পুলিশ অথবা ক্রাইম ব্রাঞ্চের পক্ষ থেকে দেওয়া কোনো তথ্য প্রকাশ করা কখনোই মানহানিকর বলে বিবেচ্য হতে পারে না।

আদালতের পক্ষ থেকে আরো জানানো হয়, সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা এবং গোপনীয়তার অধিকারের (রাইট টু প্রাইভেসি) মধ্যে একটা সমতা বজায় রাখতে হবে। বাকস্বাধীনতার পথ সংকীর্ণভাবে তৈরি করতে হতে পারে, কিন্তু গোপনীয়তার অধিকার প্রত্যেকের মৌলিক অধিকার এবং তা সংবিধানসিদ্ধ। তাই কোনো মানুষ পাবলিক ফিগার মানে এই নয়, তাকে নিজের ব্যক্তি স্বাধীনতা বিসর্জন দিতে হবে।

আগামী ২০ সেপ্টেম্বর এই মামলার পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য হয়েছে।

এর আগে স্বামী রাজ কুন্দ্রার পর্নোগ্রাফি মামলায় এই অভিনেত্রীকে নিয়ে মিথ্যা প্রতিবেদন ও ভাবমূর্তি নষ্ট করার দায়ে ২৯ মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ও মিডিয়া হাউজের বিরুদ্ধে মানহানি মামলা করেছেন শিল্পা। নিঃস্বার্থ ক্ষমা না চাইলে এই সব মিডিয়া হাউজের কাছ থেকে পঁচিশ কোটি রুপির ক্ষতিপূরণ দাবি করেছেন তিনি।

ইলিয়াস/এসক

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: