প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

অসহায়দের রক্তদান বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়নের বড় সুযোগ- শিল্পমন্ত্রী

   
প্রকাশিত: ১০:৩০ পূর্বাহ্ণ, ২ আগস্ট ২০২১

ফাইল ছবি

শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুর সারাজীবনের আত্মত্যাগ তখনই সার্থক হবে, যখন আমরা অসহায় মানুষের জন্য কোনো কাজ করতে পারবো। অসহায় ও মুমূর্ষু মানুষের জন্য রক্তদান সবার জন্য একটা বড় সুযোগ বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়নে। অসহায় ও মুমূর্ষু  মানুষকে রক্তদান একটি মানবিকতা।’ একুশে টেলিভিশন লিমিটেড কার্যালয়ে শোকাবহ আগস্ট ২০২১ উপলক্ষে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আত্মত্যাগের স্মরণে স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে গতকাল রবিবার (১ আগস্ট) মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী আরও বলেন, আগস্ট বাংলাদেশের সকল মানুষের জন্য একটি শোকাবহ মাস, এ মাসে একুশে টেলিভিশনের এ রক্তদান কর্মসূচি একটি মহৎ উদ্যোগ। এটি প্রত্যেকের জন্যই অনুকরণীয়।

তিনি বলেন, আমি বিশ্বাস করি, শিল্প মন্ত্রণালয়সহ প্রতিটি মন্ত্রণালয় এবং যে সকল প্রচার সংস্থাসমূহ আছেন তারা যদি এ মহৎ উদ্যোগগুলোকে সারা বাংলাদেশের মানুষের কাছে নিয়ে যান, তাতে করে বঙ্গবন্ধু রক্তের ঋণ কখনো তো শোধ করা যাবে না, তবে মানবতার সেবায় এ রক্তদান কর্মসূচি বিশাল ভূমিকা রাখবে।

এসময় একুশে টেলিভিশন লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা পীযুষ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে অংশগ্রহণ করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ডাক্তার মোহাম্মদ শারফুদ্দীন আহমেদ। পরে ‘বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশে রক্তের অভাবে কোনো মানুষ মারা যেতে পারে না’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে একুশে টেলিভিশন লিমিটেড এ রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রান্সফিউশন মেডিসিন বিভাগের সহযোগিতায় রক্তদান কর্মসূচিতে আরো উপস্থিত ছিলেন- বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের নবসৃষ্ট ‘ইন্টারভেনশনাল হেপাটোলজি ডিভিশনে’ ডিভিশনাল প্রধান অধ্যাপক মামুন আল মাহতাব স্বপ্নীল, ট্রান্সফিউশন মেডিসিন বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. মো. আসাদুল ইসলাম, জিটিভির বার্তা প্রধান সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা, ইটিভির পরিচালক রবিউল হাসান অভি এবং কে এম শহীদুল্লাহ।

ফরমান/মস

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: