প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

প্রেমিকার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য পুরো গ্রামের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করলেন প্রেমিক

   
প্রকাশিত: ১১:৩৩ পূর্বাহ্ণ, ১৬ অক্টোবর ২০২১

প্রতীকী ছবি

প্রেম মানে না বাধা। বিভিন্ন সময় প্রেমিকার জন্য প্রেমিকের পাগলামি বা ভালোবাসা নিদর্শনের বহু ঘটনা শোনা যায়। তেমনি এক ঘটনা শোনা গেল ভারতের বিহার রাজ্যে। প্রেমিকার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য পুরো গ্রামের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করতেন ইলেকট্রিশিয়ান। এ ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পর ওই ইলেকট্রিশিয়ানকে মারধর করেছে গ্রামবাসী। সেই সঙ্গে প্রেমিকার সঙ্গে তাঁর বিয়ে পড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। এই খবর প্রকাশ করা হয়েছে দুবাইভিত্তিক সংবাদমাধ্যম গালফ নিউজের একটি প্রতিবেদনে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, বিহারের পুর্নিয়া জেলার গণেশপুর গ্রামে সন্ধ্যায় একটি নির্দিষ্ট সময়ে দুই থেকে তিন ঘণ্টা বিদ্যুৎ থাকত না। এতে ওই গ্রাম পুরোপুরি অন্ধকারে ডুবে যেত। এই সুযোগেই গ্রামটিতে প্রেমিকার সঙ্গে দেখা করতে যেতেন ওই ইলেকট্রিশিয়ান। ঘন ঘন বিদ্যুৎ যাওয়া নিয়ে সন্দেহ হলে গ্রামবাসীর দাবির মুখে এ নিয়ে তদন্ত শুরু হয়। ওই তদন্তে বেরিয়ে আসে, প্রেমিকার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্যই বিদ্যুৎ বন্ধ রাখতেন ওই ইলেকট্রিশিয়ান। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর গ্রামবাসী ওই ইলেক্ট্রিশিয়ানকে হাতেনাতে ধরার জন্য ফাঁদ পাতে। একদিন বিদ্যুৎ যাওয়ার পর গণেশপুর গ্রামের একটি সরকারি স্কুলে প্রেমিক-প্রেমিকাকে দেখতে পায় গ্রামবাসী। পরে ওই ইলেকট্রিশিয়ানকে মারধর করে তাঁর প্রেমিকার সঙ্গে বিয়ে পড়িয়ে দেওয়া হয়।

এ নিয়ে স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে গতকাল বৃহস্পতিবার গণেশপুর গ্রামের বাসিন্দা মারার রাম মুরমু বলেন, গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যদের উপস্থিতিতে ওই ইলেকট্রিশিয়ানের সঙ্গে তাঁর প্রেমিকার বিয়ে হয়। স্থানীয় থানার ওসি ভিকাশ কুমার আজাদ বলেন, `আমরা ঘটনা সম্পর্কে জেনেছি। তবে এ নিয়ে কেউ অভিযোগ দায়ের করেনি।’

না.হাসান/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: