প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

আবদুল কাদির

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

একই পরিবারের তিনজন নিহতের ঘটনায় ট্রাক চালকের দুই দিনের রিমান্ড

   
প্রকাশিত: ৭:২৭ অপরাহ্ণ, ২০ জুলাই ২০২২

ময়মনসিংহের ত্রিশালে ট্রাক চাপায় একই পরিবারের তিন জনের নিহতের ঘটনায় ট্রাক চালক রাজু আহমেদ শিপন মিয়াকে দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। ট্রাক চালক রাজু আহমেদ শিপন মিয়া রাজশাহী জেলার বাঘা উপজেলার আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে। বুধবার (২০ জুলাই) বেলা ৪ টার দিকে চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে তুলা হলে বিচারক তাজুল ইসলাম সোহাগ দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের পরিদর্শক প্রসুন কান্তি দাস গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ট্রাক চালক রাজু আহমেদ শিপন মিয়াকে ত্রিশাল থানা পুলিশ ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করে আদালতে পাঠালে বিচারক তার দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদালত।

এর আগে গত সোমবার (১৮ জুলাই) রাতে ঢাকার সাভার এলাকা থেকে রাজু আহমেদ শিপন মিয়াকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব-১৪। শনিবার (১৬ জুলাই) দুপুরের দিকে উপজেলার রাইমনি গ্রামের ফকির বাড়ির মোস্তাফিজুর রহমান বাবলুর ছেলে জাহাঙ্গীর আলম (৪০) তার অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী রত্না বেগম (৩০) ও মেয়ে সানজিদাকে (৬) নিয়ে আল্ট্রাসনোগ্রাফি করাতে ত্রিশালে আসেন। পৌর শহরের খান ডায়াগনস্টিক সেন্টারের সামনে রাস্তা পারাপারের সময় ময়মনসিংহগামী একটি ট্রাক তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই জাহাঙ্গীর আলম ও স্ত্রী রত্না বেগম মারা যান। মেয়ে সানজিদা আক্তার গুরুতর আহত হয়।

এ সময় ট্রাকচাপায় রত্না বেগমের পেট ফেটে কন্যাশিশুর জন্ম হয়। পরে আহত সানজিদা ও নবজাতককে নিয়ে ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক সানজিদাকে মৃত ঘোষণা করে নবজাতক শিশুটিকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন। তবে, অতিরিক্ত যানজটের কারণে নবজাতককে চুরখাই কমিউনিটি বেজড মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে ময়মনসিংহ মহনগরীর চরপাড়া এলাকায় লাবিব হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে শিশুটি ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নতুন করে শিশুটির জন্ডিস ও রক্তস্বল্পতা দেখা দিয়েছে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

সালাউদ্দিন/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: