প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

শাহীন মাহমুদ রাসেল

কক্সবাজার প্রতিনিধি

কক্সবাজারে অস্ত্র মামলায় যুবকের ১০ বছর কারাদণ্ড

   
প্রকাশিত: ৭:২৭ অপরাহ্ণ, ২৮ জুলাই ২০২২

দিন দুপুরে অস্ত্রের মুখে পর্যটক দম্পতিকে ছিনতাই করে পালিয়ে যাওয়ার সময় অস্ত্রসহ ধরা পড়া ছিনতাইকারীকে অস্ত্র আইনের ২টি ধারায় ১০ ও ৭ বছরের কারাদণ্ডের রায় দিয়েছে আদালত। বৃহস্পতিবার (২৮ জুলাই) বেলা ১২ টায় জরাকীর্ণ আদালতে কক্সবাজারের স্পেশাল ট্রাইব্যুনাল নং-৩ এর বিচারক মাহমুদুল হাসান এ রায় ঘোষনা করেন। দণ্ডপ্রাপ্ত আসামী হলেন মোঃ জাফর, পিতা- মৃত জালাল আহমদ,সাং দক্ষিন জালিয়াপাড়া, থানা টেকনাফ, জেলা কক্সবাজার। ৩ নম্বর স্পেশাল ট্রাইব্যুনালের সহকারী পাবলিক প্রসিকিউটর এডঃ জিয়া উদ্দীন আহমদ রায়ের তথ্য জানিয়েছেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ২০০০ সালের ১৭ আগস্ট সকাল অনুমান ১১টায় ঢাকার বাসিন্দা জনৈক আকবর হোসেন স্বপরিবারে কক্সবাজার বেড়াতে আসা পর্যটক দম্পতিকে কক্সবাজার শহরের জনগুরুত্বপূর্ণ এলাকা হিলটপ সার্কিট হাউজের দক্ষিন পাশে রাস্তায় পৌছিলে ছিনতাইকারী দল তাদের পথগতিরোধ করে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে তাদের কাছে থাকা ভিডিও ক্যামেরা, স্বর্ণালংকার টাকা পয়সা ছিনতাই করে পার্শ্ববর্তী জঙ্গলে আত্মগোপন করে। তখন পর্যটক দম্পতি কান্নাকাটি করলে মোবাইল ডিউটি করে আসা পুলিশের দল ঘটনাস্থলে পর্যটক দম্পতির কাছ থেকে ঘটনা শুনে পার্শ্ববর্তী জঙ্গলে অভিযান চালিয়ে একটি দেশীয় রিভলবার, ৩ রাউন্ড গুলিসহ আসামী মোঃ জাফরকে ধৃত করে, পরে তারমুখের ভিতর লুকিয়ে রাখা পর্যটক দম্পতির কাছ থেকে ছিনতাইকৃত একটি স্বর্ণের চেইন উদ্ধার করে। তার সাথে থাকা অপরাপর ছিনতাইকারীরা গভীর জঙ্গলে আত্মগোপন করে।

এ বিষয়ে অভিযান পরিচালনাকারী কক্সবাজার সদর থানার এএসআই হারুন অর রশিদ বাদী হয়ে ধৃত আসামীর বিরুদ্ধে একই তারিখ এজাহার দায়ের করে। যার কক্সবাজার সদর থানা মামলা নং ১৭ তাং ১৭/০৮/২০০০ ইং, ধারা- অস্ত্র আইনের ১৯(অ) ১৯(ঋ)। জি, আর মামলা নং ২৮৯/২০০০ ( সদর), এস,পি,টি মামলা নং ০৬/২০০১।

তদন্তকারী কর্মকর্তা ১জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করলে,মামলাটি বিচারের জন্য স্পেশাল ট্রাইব্যুনাল ৩ নম্বর আদালতে প্রেরণ করা হয়, বিজ্ঞ বিচারক আসামীর বিরুদ্ধে মামলায় চার্জ গঠন করেন। মামলায় রাষ্ট্রপক্ষ ৭ জন সাক্ষী আদালতে উপস্থাপন করলে আসামী পক্ষে সাক্ষীদের জেরা শেষে আসামীর আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ, উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপনসহ সব বিচারিক কার্যক্রম সম্পন্ন করে আসামীর বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আদালত অস্ত্র আইনের ১৯ (অ) ধারায় দোষী সাব্যস্থ করে ১০ বছর, ১৯(ঋ) ধারায় ৭ বছরের কারাদন্ডের রায় প্রচার করেন।

আদেশে দুই ধারার সাজা একই সাথে গননা হবে এবং ইতিপূর্বের হাজতবাস বাদ যাবে মর্মে উল্লেখ করেন। দন্ড প্রাপ্ত আসামী মোঃ জাফর রায় ঘোষণার সময় আদালতের কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন। রাষ্ট্রপক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন-সহকারী পাবলিক প্রসিকিউটর এডঃ জিয়া উদ্দীন আহমদ। আসামী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন এডঃ আবুল কালাম আজাদ।

সালাউদ্দিন/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: