প্রচ্ছদ / বিনোদন / বিস্তারিত

‘হাওয়া’ নকলের অভিযোগ, যা বললেন অমিতাভ রেজা

   
প্রকাশিত: ৭:৩৩ অপরাহ্ণ, ১ আগস্ট ২০২২

চঞ্চল চৌধুরী অভিনীত ‘হাওয়া’ সিনেমাটি মুক্তির পূর্বেই এরইমধ্যে সারা দেশব্যাপী আলোড়ন সৃষ্টি করেছে নানান কারণে। নির্মাতা মেজবাউর রহমান সুমনের প্রথম সিনেমা এটি । মুক্তি পেয়েছে গত ২৯ জুলাই। দেশের ২৪টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পর বেশিরভাগ হলে টানা হাউজফুল চলছে সিনেমাটি। অগ্রিম টিকিট বিক্রিতেই গড়েছিল রেকর্ড। দর্শকের চাপে এখনো অধিকাংশ হলে টিকিট সংকট চলছে।  কিন্তু ছবি মুক্তির পরেই  অনেকেই তুলেছেন  নকলের অভিযোগ।

ইতিমধ্যেই বিষয়টি নিয়ে বিরক্ত ‘হাওয়া’ টিম। সেই অভিযোগের উপযুক্ত জবাব দিয়েছেন নির্মাতা মেজবাউর রহমান সুমন ও অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী। এবার ‘হাওয়া’ নিয়ে কথা বলেছেন দেশের ‘আয়নাবাজি’ খ্যাত নির্মাতা অমিতাভ রেজা চৌধুরী। আজ সোমবার (১ আগস্ট)  বিকেলে একটি ভিডিওবার্তা প্রকাশ করেন অমিতাভ রেজা চৌধুরী। সেখানে ‘হাওয়া’ সিনেমা নিয়ে কথা বলেন তিনি। অমিতাভ রেজা চৌধুরী বলেন, “হাওয়া’ সিনেমা সবাই দেখতে যাচ্ছে। হাউসফুল যাচ্ছে। এটা আমাদের জন্য খুব আনন্দের বিষয়। ‘পরান’ সিনেমাটিও দেখছে। একজন পরিচালকের সিনেমা দেখে মানুষ যখন কথা বলে, প্রশংসা করে; সেটা আমাদের অনুপ্রাণিত করে। আমরা আরেকটি ভালো সিনেমা বানানোর জন্য অনুপ্রাণিত হয়। মেজবাউর রহমান সুমনসহ ‘হাওয়া’ টিমের সবাইকে সাধুবাদ জানাই। অনেক কষ্ট করে তারা সিনেমাটি করেছেন।

বিশিষ্ট এই চলচিত্র পরিচালক জানান, “গত চার বছর যাবত ‘হাওয়া’ টিমের সঙ্গে আছি। খুব কাছ থেকে সিনেমাটি তৈরি করা দেখেছি। কিভাবে চিত্রনাট্য নির্মাণ করা হয়েছে, কিভাবে রিসার্চ করা হয়েছে, কীভাবে ৪৫ দিন শুটিং করা হয়েছে; এসবকিছু আমার চোখের সামনে দেখা। সুতরাং আমি জানি কতটা পরিশ্রম করে একজন পরিচালক ছবিটি শেষ করেছে।” এই পরিচালক বলেন, “তখনই আমরা মর্মাহত হই, যখন পরিচালককে নিয়ে কেউ বাজে কথা বলে। যদি কেউ বলে এটা নকল সিনেমা- সেটা আমাদের জন্য দুঃখের। দয়া করে একজন পরিচালককে আপনারা এভাবে অসম্মান করবেন না। আপনারা ‘হাওয়া’ সিনেমাটি দেখুন। এরপর ছবির ভালো-খারাপ দিক নিয়ে কথা বলুন।”

প্রসঙ্গত, তারকাবহুল এ সিনেমায় আরো অভিনয় করেছেন চঞ্চল চৌধুরী, নাজিফা তুশি, শরিফুল রাজ, সুমন আনোয়ার, নাসির উদ্দিন খান, সোহেল মণ্ডল, রিজভী রিজু, মাহমুদ হাসান এবং বাবলু বোস। চিত্রগ্রহণ করেছেন কামরুল হাসান খসরু, সম্পাদনা সজল অলক, আবহ সংগীত রাশিদ শরীফ শোয়েব এবং গানের সংগীতায়োজন করেছেন ইমন চৌধুরী।

রেজানুল/সা.এ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: