প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

নুরুল আমিন

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি

প্রধানমন্ত্রী নির্দেশে পার্বত্য অঞ্চলে সবচেয়ে বেশী উন্নয়ন হয়েছে: বীর বাহাদুর উশৈসিং

   
প্রকাশিত: ৫:৪২ অপরাহ্ণ, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২

পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তরিকতায় ও নির্দেশনায় পার্বত্য অঞ্চলে সবচেয়ে বেশী উন্নয়ন কর্মকান্ড সম্পন্ন হয়েছে। তিনি বলেন, আমাদের এই পার্বত্য চট্টগ্রাম দেশের জন্য বোঝা নয়, এই পার্বত্য অঞ্চল দেশের গুরত্বপূর্ণ সম্পদে পরিণত হবে। সেই লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে বর্তমান সরকার ও পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

এটা পার্বত্য অঞ্চলের মানুষের জন্য অনেক বড় প্রাপ্তি। এছাড়া খুব শীঘ্রই অসমাপ্ত কাপ্তাইয়ের রাইখালী সহ সব জায়গার উন্নয়নমূলক কাজগুলো সম্পন্ন হওয়ার আশ্বাস দেন তিনি। তিনি আরো বলেন, আমাদের পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে রাঙামাটি, বান্দরবান খাগড়াছড়িসহ সব পার্বত্য অঞ্চলে সকল ধর্মের মানুষের জন্য সমানতালে চলছে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড।

আজ রাঙামাটির কাপ্তাই উপজেলার রাইখালীতে ১ কোটি ৭৭ লাখ টাকার মসজিদ, মন্দির ও বিহারসহ বিভিন্ন প্রকল্পের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর এসব কথা বলেছেন।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, রাঙামাটি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুই প্রু চৌধুরী, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইসচেয়ারম্যান মোঃ নুরুল আলম চৌধুরী (অতিরিক্ত সচিব), পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের সদস্য প্রশাসন ড. ইফতেকার আহমেদ (যুগ্ন সচিব), রাঙামাটি জেলা পরিষদ সদস্য অংসুই ছাইন চৌধুরী, দীপ্তিময় তালুকদার, কাপ্তাই উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ মফিজুল হক, কাপ্তাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনতাসির জাহান।

উদ্বোধনকৃত প্রকল্পগুলো হচ্ছে ৯০ লাখ টাকা ব্যয়ে কাপ্তাই উপজেলাধীন রায় সাহেবের বৌদ্ধ বিহার নির্মাণ, ৩৫ লাখ টাকা ব্যয়ে শ্রীশ্রী ত্রিপুরা সুন্দরী কালী বাড়ির গীতা শিক্ষা ভবন নির্মাণ, ৩২ লাখ টাকা ব্যয়ে নারানগিরিমুখ মসজিদ-উল-আকসা ভবন নির্মাণ ও ২০ লাখ টাকা ব্যয়ে ড্রাগন স্পোটিং ক্লাব নির্মাণ। যা পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়াধীন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন করছে।

তুহিন/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: