প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

শাহাদুল ইসলাম সাজু

জয়পুরহাট প্রতিনিধি

জয়পুরহাটে হত্যা মামলায় পিতা-পুত্রসহ ৪ জনের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড

   
প্রকাশিত: ২:২২ অপরাহ্ণ, ১০ নভেম্বর ২০২২

জয়পুরহাটের ফরিদপুর গ্রামের এনামুল হক হত্যা মামলার ১৭ বছর পর বৃহস্পতিবার দেওয়া রায়ে পিতা-পুত্রসহ ৪ জনের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ৩ জনকে বেকসুর খালাস প্রদান করেছে আদালত। সাজাপ্রাপ্তদের প্রত্যেকের ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে।

জয়পুরহাটের জেলা ও দায়রা জজ মো: নূর ইসলাম বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১ টায় জনাকীর্ণ আদালতে ওই রায় ঘোষনা করেন। সাজাপ্রাপ্ত ৪ জন হচ্ছেন জয়পুরহাট সদর উপজেলার ভাদসা ইউনিয়নের পন্ডিতপুর গ্রামের পিতা রমজান আলী (৬৫), পুত্র রঞ্জু (৪৭) ও শাহীন আলম ওরফে রনি (৪৯) ও রেজাউল ইসলামের ছেলে আব্দুল হান্নান (৪৮)। এরমধ্যে রঞ্জু পলাতক রয়েছে। অভিযোগ প্রমানিত না হওয়ায় মামলা থেকে বেকসুর খালাস দেওয়া হয় একই এলাকার শাহাদত, জাহাঙ্গীর ও আলীমকে।

সরকারি কৌশলী (পিপি) এ্যাড: নৃপেন্দ্রনাথ মন্ডল জানান, জয়পুরহাট সদর উপজেলার ভাদসা ইউনিয়নের ফরিদপুর গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে এনামুল হকের (৩০) মৃতদেহ ২০০৫ সালের ২ ফেব্রুয়ারি আলুর জমিতে পড়ে থাকা অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ। এ সময় এনামুল হকের গলাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়।

এ ঘটনায় নিহতের পিতা আলতাফ হোসেন বাদী হয়ে রমজান আলীর সঙ্গে টাকা লেনদেন নিয়ে কলহের উল্লেখসহ অজ্ঞাত আসামী করে জয়পুরহাট থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশের উপপরিদর্শক নুরল ইসলাম প্রামানিক ২০০৫ সালের ৪ এপ্রিল আদালতে ৭ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। আদালত এ মামলায় ১৯ জনের স্বাক্ষ্য গ্রহন সহ দীর্ঘ শুনানী শেষে মামলা দায়ের করার ১৭ বছর পর বৃহস্পতিবার এ রায় প্রদান করেন। সরকার পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন সরকারি কৌশলী এ্যাড: নৃপেন্দ্রনাথ মন্ডল এবং আসামী পক্ষে ছিলেন এ্যাড: ফরিদুজ্জামান, এ্যাড: রফিকুল ইসলাম তালুকদার তরুন ও এ্যাড: হেনা কবীর।

সালাউদ্দিন/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: