এম শরীফ আহমেদ

ভোলা প্রতিনিধি

উপকূল দিবসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

১৩ নভেম্বর, ২০১৮ ০৩:০০:০০

ছবি: প্রতিনিধি

‘উপকূল হোক সুরক্ষীত’ এই স্লো গানে ভোলায় প্রলয়ঙ্ককরী ১২ নভেম্বরের স্মরণে দোয়া ও স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার(১২ নভেম্বর) সদরের জাহান আরা আর্কেডের ৩য় তলায় তাহ্ফিজুল কোরআন ক্যাডেট মাদ্রাসায় একতা ফাউন্ডেশনের আয়োজনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আয়োজিত স্মরণ সভায় উপস্থিত ছিলেন, একতা ফাউন্ডেশনের ভাইস-চেয়ারম্যান মুনতাসির মামুন (পাভেল), তাহ্ফিজুল কোরআন ক্যাডেট মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক হাফেজ হাফিজুর রহমান, সহকারী শিক্ষক হাফেজ মাহাদি হাসান, সমাজ সেবক আবদুর রব আকন, একতা ফাউন্ডেশনের নির্বাহী সদস্য মো. ইসমাঈল হোসেন মুন্না, স্বেচ্ছাসেবী ও তরুণ সাংবাদিক এম শরীফ আহমেদ, ব-দ্বীপ ফোরামের ভোলা সদর উপজেলার কার্যনির্বাহী সদস্য মো. রমিজ উদ্দিন প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, ১৯৭০ সালের প্রলয়ঙ্ককরী ১২ নভেম্বর সরকারি হিসাব অনুযায়ী ৫ লাখ মানুষ এবং বেসরকারি হিসায় অনুযায়ী ১০ লাখ মানুষ প্রাণ হারান। প্রলয়ঙ্করী ঘূর্ণিঝড় ও জলোচ্ছ্বাসে সেদিন লণ্ডভণ্ড হয়ে গিয়েছিল ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, সন্দ্বীপসহ উপকূলীয় বিশাল জনপদ।

প্রাণহানি ঘটে ভোলার ২ লাখ মানুষের। মারা যায় লাখ লাখ গবাদিপশু ও জীবজন্তু। সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ছিল ভোলার তজুমদ্দিন উপজেলা। সেখানে ১৬৭০০০ জন অধিবাসীর মধ্যে ৭৭০০০ জনই (৪৬%) প্রাণ হারায়। প্রতি বছর এ দিনটি স্মরণে উপকূলীয় চরাঞ্চলে বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন বিভিন্ন একর্মসূচির মাধ্যমে শোকাবহ এ দিবসটি পালন করে।

বিডি২৪লাইভ/এমকে

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: