প্রচ্ছদ / রাজনীতি / বিস্তারিত

নয়াপল্টনে সংঘর্ষের তদন্ত প্রতিবেদন ইসিতে

১৯ নভেম্বর ২০১৮ , ১২:২৯:০০

ছবি : ইন্টারনেট থেকে

দলীয় মনোনয়ন ফরম বিতরণের সময় নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনার তদন্ত প্রতিবেদন নির্বাচন কমিশনে (ইসি) জমা দিয়েছে পুলিশ। প্রতিবেদনটি রোববার (১৮ নভেম্বর) জমা দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে ইসি সচিবালয়ের সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, পুলিশের পক্ষ থেকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) বরাবর ওই ঘটনার প্রতিবেদন দেওয়া হয়েছে। সিলগালা একটি খামে প্রতিবেদন দেওয়া হয়েছে। সিইসি বরাবর দেওয়া ওই প্রতিবেদন তারা খোলেননি।

জানা যায়, ১৪ নভেম্বর পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতা-কর্মীদের সংঘর্ষের পূর্ণাঙ্গ বিবরণ জানানোর নির্দেশ দিয়ে পুলিশকে চিঠি দিয়েছিল ইসি। সে অনুযায়ী রোববার পুলিশ ঘটনার প্রতিবেদন ইসিতে জমা দেয়।

এর আগে রাজধানীর নয়াপল্টনে পুলিশের গাড়িতে অগ্নিসংযোগ ও সংঘর্ষের তিন মামলায় জামিন পেয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস ও তার স্ত্রী মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস। রোববার দুপুরের পর হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ তাদেরকে আট সপ্তাহের আগাম জামিন দেন।

অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেনের জুনিয়র মাহবুবুর রহমান দুলাল এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

প্রসঙ্গত, জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে মনোনয়ন ফরম বিক্রির কার্যক্রমের মধ্যেই ঢাকার নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে গত বুধবার (১৪ নভেম্বর) দুপুরে পুলিশের সঙ্গে দলটির নেতাকর্মীদের ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। এ সময় পুলিশের দুটি গাড়ি পোড়ানো হয়, ভাঙচুর করা হয় অনেক গাড়ি।

সংঘর্ষের ঘটনায় বিএনপি ও পুলিশ পরস্পরকে দায়ী করেছে।

বিএনপি বলেছে, ‘সরকারের নির্দেশে’ পুলিশ বিনাউসকানিতে তাদের নেতাকর্মীদের ওপর ‘হামলা’ চালিয়েছে।

অন্যদিকে পুলিশ বলেছে, নির্বাচন সামনে রেখে ‘ইস্যু তৈরির লক্ষ্যে’ বিনাউসকানিতে বিএনপি কর্মীরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

এ ঘটনায় দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাসসহ বিএনপির নেতাকর্মীদের আসামি করে তিনটি মামলা করে পুলিশ। এসব মামলায় অন্তত ৫০ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

বিডি২৪লাইভ/এইচকে

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: