প্রচ্ছদ / বিনোদন / বিস্তারিত

ইমরুল নুর

বিনোদন প্রতিবেদক

ইরফান-তিশার ‘সহে না যাতনা’

০৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০৮:৫১:০০

ছবি : সংগৃহীত

আবীর ও তিতলী দুজন দুজনকে ভীষণ ভালোবাসতো। কিন্তু এখন তারা দুজন দুজন থেকে অনেক দূরে। দুজনই এখন বিবাহিত এবং যে যার মতো সুখের সংসার করছে। আবীরের একমাত্র কন্যা সন্তানের নাম মিথিলা আর তিতলীর একমাত্র পুত্র সন্তান তাহসান। দু’বছর পর দেখা হয় আবীর আর তিতলীর। দু’বছর পর দুজনের দেখা হবার পর তাদের দুজনের মধ্যে তখনকার সময়ের প্রেমের স্মৃতি ভেসে উঠে এবং দুজনেই আলাদা আলাদাভাবে কষ্ট পায়। আবীর ভাবে তিতলী তার স্বামী-সন্তান নিয়ে বেশ সুখী আবার তিতলীও ভাবে আবীর তার স্ত্রী-কন্যা নিয়ে বেশ সুখী।

এভাবে নানামুখী নাটকীয় আবহে কিছুদিন অতিবাহিত হয়। ঘটনাচক্রে একদনি জানতে পারে দুজনের কেউই সত্যিকার অর্থে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়নি বরং দুজন দুজনের অপক্ষোয় ছিল। এমনই গল্পে সম্প্রতি নির্মিত হয়েছে নাটক ‘সহে না যাতনা’।

নাটকের গল্পে আবীর ও তিতলীর চরিত্রে দেখা যাবে ইরফান সাজ্জাদ ও তানজিন তিশাকে। জহির করিমের গল্পে নাটকটি নির্মাণ করেছেন আদিত্য জনি।

নির্মাতা আদিত্য জনি জানান, প্রেমের গল্পেই নাটকটি নির্মিত হয়েছে। দর্শক চাহিদার কথা মাথায় রেখেই এমন গল্পের কাজটি করেছি। আশা করছি দর্শকদের ভালো লাগবে।

তানজিন তিশা বলেন, সব গল্পই তো গতানুগতিক ধারার। এখানে কিছু বিষয় থাকে যে কে কিভাবে সেটা উপস্থাপন করল। আমরা যখন কোন কাজ করি তখন সেই কাজটাই আমাদের কাছে বেস্ট মনে হয়। সেই জায়গা থেকে আমরা কাজটা করি।

নাটকটিতে ইরফান ও তিশা ছাড়াও আরও অভিনয় করেছেন জহির করিম, রেশমী প্রমুখ। আগামী ৭ই ডিসেম্বর শুক্রবার রাত ৯টায় মাছরাঙ্গা টেলিভিশনে নাটকটি প্রচার করা হবে।

বিডি২৪লাইভ/আইএন/টিএএফ

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: