প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

নিজ বাসায় গৃহবধূর ক্ষতবিক্ষত লাশ

২০ জানুয়ারি ২০১৯ , ১১:০২:০০

ছবি : সংগৃহীত

এক গৃহবধূকে কুপিয়ে ও আগুনে পুড়িয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। শনিবার (১৯ জানুয়ারি) দুপুরে নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলার সোনাকান্দা এলাকার হাসানুল হকের বাড়ির দ্বিতীয় তলা থেকে গৃহবধূ নাঈমা রহমানের (৩৫) আগুনে পোড়া ক্ষতবিক্ষত মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ বিষয়ে নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) সুবাস চন্দ্র সাহা জানান, নিহতের মাথায় ধারালো অস্ত্রের বেশ কয়েকটি আঘাতে চিহ্ন রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। যে আলামতের সংগ্রহ করা হয়েছে তাতে আমরা ঘটনাটি শিগগিরউ উদঘাটন করতে পারবো। আশপাশের লোকজনই এই হত্যার সঙ্গে জড়িত রয়েছে কিনা না তাও আমরা তদন্ত করে দেখছি।

বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম জানান, কে বা কারা ওই গৃহবধূকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাথায় ৫-৬ আঘাত করে। এতে তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়। এতে তার মৃত্যু হয়। পরে সন্ত্রাসীরা ঘরের কাপড় চোপড় শরীরে পেঁচিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। কী কারণে কারা এ হত্যাকাণ্ডটি ঘটিয়েছে আমরা তা তদন্ত করে দেখছি।

নাঈমার বড় মেয়ে আনুশী জানায়, মাবিয়া ভবনে প্রায় পাঁচ বছর ধরে ভাড়া থাকেন তারা ভাড়া থাকেন। তার বাবা থাইল্যান্ড প্রবাসী আনিসুর রহমান মিয়া। শনিবার সকালে ছোট ভাই নাফিস (৮) স্কুলে চলে যায় এবং সকাল ১১টায় সে (আনুশী) স্কুলে যায়। আনুশী স্কুল থেকে দুপুর ১ টা ৪০ মিনিটের দিকে বাসায় এসে দেখে দরজা বাইরে থেকে তালা দেওয়া। পরে তার কাছে থাকা চাবি দিয়ে দরজা খুলে ঘর থেকে ধোঁয়া বের হতে দেখে। বেড রুমে গিয়ে মাকে রক্তাক্ত ও পুড়ে যাওয়া অবস্থায় দেখে সে প্রতিবেশীদের জানান। পরে প্রতিবেশীরা এসে আগুন নিভিয়ে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, ঘটনাস্থল থেকে একটি ধারালো মাছ কাটা বটি, একটি ম্যানিব্যাগ উদ্ধার করা হয়েছে। ওই সূত্র ধরে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে।

বিডি২৪লাইভ/এইচকে

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: