সম্পাদনা: শাহরিয়ার আলম

ডেস্ক এডিটর

যুদ্ধের আশঙ্কা

পাকিস্তান সীমান্তের কাছে মহড়া শুরু ভারতীয় বিমানবাহিনীর

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১১:২৫:০০

ছবি: ইন্টারনেট

পুলওয়ামার হামলা ভারতের বিশেষ বাহিনীর (সিআরপিএফ) ৪৬ জন জওয়ান নিহতের ঘটনার ৪৮ ঘন্টা না কাটটেই পাকিস্তানি সীমান্তের কাছে মহড়া শুরু ভারতীয় বিমানবাহিনীর। মুলত পাকিস্তানকে পাল্টা জবাব দিতে আকাশপথে এ মহড়ায় নেমেছে ভারতীয় বিমানবাহিনী। পোখরাণে বিমানবাহিনীর সেই মহড়ায় অংশ নিয়েছে ১৪০টি যুদ্ধবিমান।

শনিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) এই মহড়াতেই দেশটির বিশেষজ্ঞরা যুদ্ধাভ্যাস দেখছেন। শুরু হওয়া মহড়াটির নাম দেওয়া হয়েছে বায়ু শক্তি ২০১৯৷ সেখানে উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় সেনা প্রধান বিপিন রাওয়াতও।

ভারতের বিমানবাহিনীর প্রধান বিএস মার্শাল ধানওয়া বলেন, ভারতীয় বিমানবাহিনী সবসময় দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষার্থে উপযুক্ত পাল্টা জবাব দিতেই এ প্রস্তুতি। আর এই মহড়া তারই অংশবিশেষ। তিনি বলেন, ইতোমধ্যে ১৪০ টি যুদ্ধবিমান নিয়ে এই মহড়া শুরু করেছি।


তিনি আরও বলেন, জাতীয় নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জগুলি পূরণে এবং দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় আইএএফের ক্ষমতা ও প্রতিশ্রুতি জাতিকে আশ্বাস দিয়ে জানিয়ে দিতে চাই আমরা প্রস্তুত আছি।

শীর্ষ আইএএফ সূত্র জানায়, ভায়ু শক্তি অনুশীলনের পরিকল্পনা আগে থেকেই করা হয়েছিল, আমাদের শক্তির লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের জন্য বলের ক্ষমতা প্রদর্শনের জন্য এই মহড়া প্রদর্শনী করা হচ্ছে। তবে পুলওয়ামার হামলার কারণে আমরা এ পরিকল্পনা এখনি বাস্তবায়ণ করতে যাচ্ছি।

এদিকে একের পর এক বোমা ছুঁড়ে ফেলা হচ্ছে উঁচু থেকে পোখরাণের মাটিতে। ব্যবহার করা হয়েছে মিগ, তেজস্ব, সুখোই যুদ্ধ বিমান। এর মধ্যে মিগ- ২১, ২৭, ২৯ ছাড়াও জাগুয়ার, সুখোই, তেজস রয়েছে।

এর আগে পুলওয়ামার হামলার পরই ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছেন, এই হামলার প্রতি পাকিস্তানকে পাল্টা জবাব দিকে সব বাহিনীকে পূর্ণ স্বাধীনতা দেওয়া হলো। তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী দলের অন্তভূক্ত করে পাকিস্তানকে সবার সাথে কুটনীতিক সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন করা হবে বলেও জানান তিনি।

পুলওয়ামার ঘটনার পরই সেনার পক্ষ থেকে ঘোষণা করা হয়েছিল, এই হামলার যোগ্য জবাব দেয়া হবে। এই মহড়া তারই প্রস্তুতি বলে মত অনেকের।

বিডি২৪লাইভ/এসএ

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: