মো: ইমরান হোসেন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

শেষ ম্যাচের আগে টাইগারদের জন্য দুঃসংবাদ

১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৫:০২:৪১

ছবি: ইন্টারনেট

স্বাগতিক কিউইদের বিপক্ষে বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে মাঠে নামছে সফরকারী বাংলাদেশ। এরই মধ্যে টানা দুটি ম্যাচে কিউইদের কাছে পরাজিত হয়ে সিরিজ খুইয়ে বসেছে মাশরাফি বিন মর্তুজার দল।

তাই ডুনেডিনে বুধবারের (২০ ফেব্রুয়ারি) ম্যাচটি অনেকটা আনুষ্ঠানিকতা রক্ষা হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে স্বাগতিক টাইগারদের কাছে। কিন্তু টাইগাররা চাইবে এক ম্যাচ জিতে হোয়াইটওয়াশ এড়াতে।

এদিকে বাংলাদেশ সময় ভোর ৪টায় শুরু হতে যাওয়া এই ম্যাচটির আগে একটি দুঃসংবাদ পেয়েছে বাংলাদেশ। ক্রাইস্টচার্চে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় ম্যাচে ইনজুরির কবলে পড়েছেন দলের দুই ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম এবং মোহাম্মদ মিঠুন।

২০১৮ সালের এশিয়া কাপে পাঁজরের সেই ইনজুরি ফের মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে মুশফিকের। অপর দিকে হ্যামস্ট্রিংয়ের ইনজুরিতে ভুগছেন টানা দুই ম্যাচে অর্ধশতক হাঁকানো মিঠুন। ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে রান নেওয়ার সময় পায়ে টান পড়েছিলো তাঁর।

তবে তৃতীয় ওয়ানডের আগে তাঁদের সুস্থতার ব্যাপারে আশাবাদী দলের ম্যানেজার খালেদ মাসুদ পাইলট। আশা করা যাচ্ছে বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) সুস্থ হয়ে মাঠে নামতে পারবেন তাঁরা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত মুশফিক খেলতে না পারলে সেক্ষেত্রে দলে জায়গা হতে পারে মমিনুল হকের এবং মিঠুন অনুপস্থিত থাকলে একজন বাড়তি পেসার অন্তর্ভুক্ত হতে পারেন একাদশে।

তৃতীয় ওয়ানডেতে নিউজিল্যান্ড দলের অধিনায়ক হিসেবে থাকবেন টম লাথাম। নিয়মিত অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন টানা খেলার মধ্যে থাকায় তাঁকে বিশ্রাম দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নিউজিল্যান্ড টিম ম্যানেজমেন্ট। তাঁর পরিবর্তে দলে থাকবেন কলিন মুনরো।

চোখ থাকবে যাদের ওপরঃ

মোহাম্মদ মিঠুনঃ (বাংলাদেশ)

প্রথম দুই ওয়ানডেতে কিউইদের বোলিং তোপের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি বাংলাদেশ দলের টপ অর্ডার। কিন্তু সেই দুঃসময়েও ব্যাট হাতে দারুণ ধারাবাহিকতার পরিচয় দিয়েছেন মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ মিঠুন।

প্রথম ওয়ানডেতে ৬২ রানের ইনিংস খেলার পর দ্বিতীয় ম্যাচে ৫৭ রান করেন তিনি। হ্যামস্ট্রিংয়ের ইনজুরি কাটিয়ে আগামীকাল তিনি মাঠে ফিরলে তাঁর ওপরে আবারও ভরসা রাখবে টাইগার শিবির।

মার্টিন গাপটিল (নিউজিল্যান্ড)

ভারতের বিপক্ষে আশানুরূপ পারফর্ম না করতে পারলেও বাংলাদেশের বিপক্ষে নেপিয়ারে অনুষ্ঠিত প্রথম দুই ম্যাচে দারুণভাবে নিজেকে প্রমাণ করেছেন কিউই ওপেনার গাপটিল। টানা দুইটি শতক হাঁকিয়ে দলকে অনেকটা একাই সিরিজ জিতিয়েছেন তিনি।

নেপিয়ারে অনুষ্ঠিত প্রথম ওয়ানডেতে ১১৭ রানে অপরাজিত থাকার পর ক্রাইস্টচার্চে খেলেন ১১৮ রানের দারুণ আরেকটি ইনিংস। আগামীকালও তাঁর জ্বলে ওঠার অপেক্ষায় থাকবে স্বাগতিকরা।

পিচ এবং কন্ডিশনঃ

ডুনেডিনের ইউনিভার্সিটি ওভালের এই মাঠটি বরাবরই ব্যাটিং সহায়ক। গত বছর এই মাঠেই শুরুতে ব্যাটিং করতে নেমে ৩৩৫ রানের দলীয় স্কোর গড়েছিলো সফরকারী ইংল্যান্ড। কিন্তু এরপরেও ম্যাচটিতে ৫ উইকেটের ব্যবধানে পরাজিত হয়েছিলো তারা কিউইদের কাছে। এখন পর্যন্ত ডুনেডিনে ৩০০ ছাড়ানো দলীয় সংগ্রহ রয়েছে ৪টি। আগামীকালের ম্যাচটির উইকেটও যথারীতি ব্যাটিং বান্ধব হতে যাচ্ছে তা অনুমিতই বলা চলে।

বিডি২৪লাইভ/এআইআর

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: